* ঘূর্ণিঝড় ‘দেয়ি’ : ৩ নম্বর সঙ্কেত বহাল            * নূপুর আছে মরিয়ম নেই, রাজহাঁসের বুকের ২ টুকরা মাংস নেই           * বাকৃবিতে কর্মকর্তা কর্মচারীদের বিক্ষোভ           * বিসিএস উত্তীর্ণ মেয়েকে উদ্ধারে থানার সামনে অবস্থান বাবা-মায়ের           * ক্লান্ত মাশরাফিদের সামনে সতেজ ভারত           * নিউইয়র্কের উদ্দেশে সকালে ঢাকা ছাড়ছেন প্রধানমন্ত্রী           *  প্রতারক কামাল-মাসুদ এর বিরুদ্ধে চার মামলা            * হালুয়াঘাটে পুলিশের হাতে ফের আটক-৬           *  ঝিনাইগাতীতে বাবা শ্রেষ্ঠ শিক্ষক মেয়ে সেরা শিক্ষার্থী           * ভারত থেকে প্রশিক্ষন প্রাপ্ত ২০ টি ঘোড়া আমদানী           *  ফুলপুরে ৭৭ জন ভিক্ষুকের মাঝে সেলাই মেশিন বিতরণ            * কেন্দুয়ায় নারী বিসিএস ক্যাডারকে অপহরণের অভিযোগ           * মাদ্রাসায় জোড়া খুন: পরিচালকের বিরুদ্ধে মামলা           * তরুণীরা আবেদনময়ী সেলফি তোলেন কেন?            * মাথাপিছু আয় বেড়েছে ১৬,৩৮৮ টাকা           * সৌন্দর্যের গোপন রহস্য জানালেন শ্রীদেবীর মেয়ে            * নবনিযুক্ত দুই রাষ্ট্রদূতের রাষ্ট্রপতির কাছে পরিচয়পত্র পেশ           * শ্রীলঙ্কার দুর্দিন দেখে অবসর ভেঙে ফেরার ইঙ্গিত দিলশানের            * স্মার্টফোনের আসক্তি কাটানোর নয়া অস্ত্র           * আলোচনায় বসতে মোদিকে ইমরানের চিঠি          
* ঘূর্ণিঝড় ‘দেয়ি’ : ৩ নম্বর সঙ্কেত বহাল            * বাকৃবিতে কর্মকর্তা কর্মচারীদের বিক্ষোভ           * বিসিএস উত্তীর্ণ মেয়েকে উদ্ধারে থানার সামনে অবস্থান বাবা-মায়ের          

মানিকগঞ্জের চরে জঙ্গি ধরতে অভিযান চলছে

মানিকগঞ্জ প্রতিনিধি, | মঙ্গলবার, জুলাই ২৬, ২০১৬
মানিকগঞ্জের চরে জঙ্গি ধরতে অভিযান চলছে
 মানিকগঞ্জ: জঙ্গিদের প্রশিক্ষণের আস্তানা ও তাদের খোঁজে মানিকগঞ্জের দৌলতপুর উপজেলার যমুনার দুর্গম চরাঞ্চলে যৌথ বাহিনীর অভিযান চলছে। অভিযানে তিন জনকে আটক করা হয়েছে বলে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী দাবি করছে। তবে আটকদের স্বজনরা জানান তাদের আগেই আটক করেছিল আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা।

মঙ্গলবার সকাল নয়টা থেকে উপজেলার বাচামারা, বাঘুটিয়া, চরকাটারি ও জিয়নপুর ইউনিয়নে এই অভিযান শুরু হয়। র‌্যাব-৪, পুলিশ, আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়ন ও গোয়েন্দা শাখার সমন্বয়ে গড়া যৌথ বাহিনীর নেতৃত্ব দিচ্ছেন মানিকগঞ্জ পুলিশ সুপার মাহফুজুর রহমান। একই সঙ্গে মানিকগঞ্জের সীমান্ত ঘেঁষা পাবনার বেড়া উপজেলার চরেও অভিযান চলছে।

পুলিশের একটি সূত্র জানায়, অভিযানকালে সন্দেহজনক এলাকার প্রতিটি বাড়িতে তল্লাশি চালানো হচ্ছে। এছাড়া দীর্ঘদিন ধরে অনুপস্থিত থাকা ব্যক্তিদের সম্পর্কেও খোঁজ খবর নেয়া হচ্ছে। অভিযানের খবর শুনে পার্শ্ববর্তী চরগুলো থেকে ভয়ে লোকজন অন্য চরে গিয়ে আশ্রয় নিচ্ছে।

সকাল সোয়া ১১টায় শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত তিনজনকে আটক করা হয়েছে বলে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী দাবি করছে। তবে কি কারণে তাদের আটক করা হয়েছে পুলিশ তা জানায়নি। তাদের বিরুদ্ধে সুনির্দিষ্ট কোনো অভিযোগ আছে কি না তাও জানা যায়নি। জিজ্ঞাসাবাদের পর তাদের সম্পর্কে বিস্তারিত জানাবে পুলিশ।

আটকরা হলেন, বাঘুটিয়া আলিম মাদ্রাসার অধ্যক্ষ আবুল বাশার, কাজী শফিউদ্দিন দাখিল মাদ্রাসার শিক্ষক ইসহাক আলী ও শাহ আলম। তবে আটক তিনজনের স্বজনদের দাবি, তাদের আগেই আটক করেছিল পুলিশ। তাদের মধ্যে শাহ আলমকে সোমবার সকালেই উপজেলার বাঘুটিয়া ইউনিয়নের পারুরিয়া বাজার থেকে সাদা পোশাকে ধরে নিয়ে যায় ডিবি পুলিশ। তাদের আটকের বিষয়ে গতকাল রাতেই ঢাকাটাইমসে খবর প্রকাশিত হয়েছিল।

আটক শাহআলমের বড় ছেলে আসিফ গতকাল ঢাকাটাইমসকে জানিয়েছিল, তার বাবা সোমবার সকাল সাড়ে ১০টায় বাজার করতে পারুরিয়া বাজারে যায়। এ সময় সাদা পোশাকে ডিবি পুলিশের সদস্যরা তাকে আটক করে নিয়ে যায়। বাড়ি থেকে বিষয়টি জানার পর সাভারের হোস্টেল থেকে দৌলতপুর থানায় আসি। সেখানে দায়িত্বরত পুলিশের কাছে আব্বাকে আটকের ব্যাপারে জানতে চাইলে ওই থানা থেকে তাকে আটক করা হয়নি বলে জানানো হয়। পরে বলা হয়, ডিবি পুলিশ আব্বাকে মানিকগঞ্জ নিয়ে গেছে।

আটকের বিষয়ে আসিফ বলেন, আমার আব্বা এবারের ইউপি নির্বাচনে বিদ্রোহী আওয়ামী প্রার্থীর পক্ষে ক্যাম্পেইন করেন। বিদ্রোহী প্রার্থী জয়ী হওয়ায় আওয়ামী লীগ মনোনীত পরাজিত প্রার্থীর লোকজন চক্রান্ত করে জামায়াতের লোকজনের নামের তালিকায় আব্বার নামও তুলে দেয়।

আসিফ আরও বলেন, আমার আব্বা একজন ধর্মপ্রাণ মানুষ। তিনি কোন রাজনৈতিক দলের সঙ্গে সম্পৃক্ত নন।

মানিকগঞ্জ পুলিশ সুপার মাহফুজুর রহমান জানান, দেশের বিভিন্ন স্থানে জঙ্গি হামলার ঘটনা ঘটেছে। হামলার জন্য জঙ্গিরা চরাঞ্চলে প্রশিক্ষণ ও আশ্রয় নিয়েছে। এ কারণে চরাঞ্চলগুলোতে বিশেষ গুরুত্ব দিয়ে অভিযান চালানো হচ্ছে। এরই ধারাবাহিকতায় মানিকগঞ্জের ওই চরাঞ্চলে এই অভিযান চালানো হচ্ছে। যে তিনজনকে আটক করা হয়েছে তারা জঙ্গি বা সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডে জড়িত কি না তা যাচাই-বাছাই করা হচ্ছে।

বগুড়ার সারিয়াকান্দির চরে যৌথ বাহিনীর অভিযান শুরুর পর গত ১৯ জুলাই গাইবান্ধার সাঘাটা উপজেলার দক্ষিণে সিপি গাড়ামারা ও দিঘলকান্দি চরে আকস্মিক অভিযান চালায় র‌্যাব ও পুলিশের যৌথ বাহিনি। অভিযানে বেশ কিছু চাপাতি, চাকু ও জিহাদি বই উদ্ধার করা হয়। পরে ২২ জুলাই একই জেলার ফুলছড়ি উপজেলার বিভিন্ন চরে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা ফের অভিযান চালায়। তবে এই অভিযানে কাউকে আটক করা যায়নি।

এদিকে জঙ্গি নির্মূল অভিযানের অংশ হিসেবে গতকাল দিবাগত রাতে রাজধানীর কল্যাণপুরের ৫ নম্বর রোডের তাজ মঞ্জিলে অভিযান চালিয়েছে পুলিশ। অভিযানে পুলিশের সঙ্গে গোলাগুলিতে নয় জঙ্গি নিহত হয়েছেন।




আরও পড়ুন



প্রধান সম্পাদকঃ
ড. মো: ইদ্রিস খান

সম্পাদক ও প্রকাশকঃ
মোঃ খায়রুল আলম রফিক

সিয়াম এন্ড সিফাত লিমিটেড
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ৬৫/১ চরপাড়া মোড়, সদর, ময়মনসিংহ।
ফোন- +৮৮০৯৬৬৬৮৪, +৮৮০১৭৭৯০৯১২৫০, +৮৮০১৯৫৩২৫২০৩৭
ইমেইল- aporadhshongbad@gmail.com
(নিউজ) এডিটর-ইন-চিফ,
ইমেইল- khirulalam250@gmail.com
close