*  প্রেমিকের লালসার শিকার মেয়ে, অতঃপর...           *  নেতাদের অবৈধ সম্পদের খোঁজে দুদক           * বাংলাদেশি যাত্রীদের ফ্রি হোটেল সুবিধা দেবে এমিরেটস           * ৪ দিনের সফরে ঢাকায় ভারতীয় নৌবাহিনী প্রধান           *  সুলতানের স্বাক্ষর নিয়ে এজাহার সাজালো পুলিশ!            * খাদ্যের ঠিকাদারি যুবলীগ-যুবদল নেতাদের হাতে           * চুরির ঘটনায় জড়িত সন্দেহে ছাত্রলীগ নেতাসহ দু’জনকে আটক            *  বাদলের হোটেলে অভিযানে বিপুল পরিমাণ মাদকদ্রব্যসহ ১৮ নারী গ্রেফতার           *  ‘টেন্ডারবাজ, চাঁদাবাজ ও সন্ত্রাসীরা সাবধান হয়ে যাও : কাদের           *  আমরা পরিবারটিকে সান্ত¦না দেয়ার চেষ্টা করেছি           * দলছুটরা ক্ষমতাসীন দল           * যাত্রীর পায়ুপথে মিলল ৫ হাজার পিস ইয়াবা            * ১০০ স্ত্রী ও ৫০০ সন্তান নিয়ে বাফুটের রাজার সুখের জীবন!           * সবাই নৌকা মার্কার সমর্থক কিন্তু ভোটের বাক্সে ঘোড়া           * পড়াশোনায় মনোযোগী হওয়ার ১০ উপায় !           *  যৌনমিলন উপভোগের ৩ সতর্কতা            * অ্যাকশন শুরু, দলে পরগাছা থাকবে না: কাদের           * কুপিয়ে আ. লীগ নেতাকে হত্যাচেষ্টা           * শেরপুরে ইয়াবাসহ আটক নারী কারাগারে           * ১৫ বছর বয়সে ধর্ষণের শিকার হয়ে বাড়ি ছাড়েন এ অভিনেত্রী          
* বাংলাদেশি যাত্রীদের ফ্রি হোটেল সুবিধা দেবে এমিরেটস           * ৪ দিনের সফরে ঢাকায় ভারতীয় নৌবাহিনী প্রধান           * কোন দিন ঘুষ খাইনি, আমার এলাকাতেও এসব চলবে না          

গড়াই নদীর ভাঙনে বিপাকে শত শত পরিবার

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি, | শনিবার, আগস্ট ৬, ২০১৬
গড়াই নদীর ভাঙনে বিপাকে শত শত পরিবার
গড়াই নদীর অব্যাহত ভাঙনে হুমকির মুখে পড়েছে কুষ্টিয়ার কুমারখালী ও খোকসা উপজেলার নদীকূলবর্তী অসংখ্য মানুষ। চরম হতাশা আর আতঙ্কে দিন পার করছেন এই দুই উপজেলার শত শত পরিবার। এখন পর্যন্ত সরকারি কোন সহযোগিতা পায়নি তারা। দ্রুতই এই ভাঙন প্রতিরোধে স্থায়ী ব্যবস্থা গ্রহণ না করলে আরো ঘর-বাড়ি বিলীন হয়ে যাবে এমন আশঙ্কা এলাকাবাসীর।

সরোজমিনে দেখা গেছে, কুষ্টিয়ার কুমারখালী উপজেলার চাপড়া ইউনিয়নের মাধুলিয়া, বহলা, ভাড়–রা, যদুবয়রা ইউনিয়নের গোবিন্দপুর ও এনায়েতপুর এবং খোকসা উপজেলার ওসমানপুর, বেতবাড়িয়া ও খোকসা পৌরসভা সংলগ্ন কমলাপুর এলাকার মিয়া পাড়া, ঋষিপাড়া, হিজলাবট, খানপুর, চান্দট, জাগলবার এলাকায় গড়াই নদীর ভয়াবহ ভাঙনের মুখে পড়েছে।

ইতোমধ্যে গড়াই নদীর ভাঙনে গত কয়েকদিনে এসব গ্রামের শত শত ঘরবাড়ি, গাছপালা, শিক্ষা ও ধর্মীয়প্রতিষ্ঠান, রাস্তাঘাট এবং ফসলি জমি নদীগর্ভে বিলীন হয়ে গেছে। এই দুই উপজেলার নদীকূলবর্তী মানুষরা সব হারিয়ে মানবেতর দিন কাটাচ্ছেন।

খোকসার কমলাপুর মিয়াপাড়ার বাসিন্দা ফাতেমা বেগম বলেন, গত তিন বছরে তার তিনবার ঘর ভেঙেছে। এবারও ভাঙলো। এখন বৃদ্ধ স্বামী নিয়ে তার মাথা গোঁজার জায়গা নেই।

এ বিষয়ে কুমারখালী উপজেলার চাপড়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মনির হাসান রিন্টু জানান, পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্মকর্তাদের নিয়ে ভাঙন এলাকা পরিদর্শন করেছি। ভাঙন প্রতিরোধে প্রয়োজনীয় সব ধরনের ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

খোকসা পৌর মেয়র তারিকুল ইসলাম বলেন, কমলাপুরের নদী ভাঙনরোধে অস্থায়ী ভিত্তিতে ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। এছাড়া ভাঙন রোধে স্থায়ী ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য পানি উন্নয়ন বোর্ডকে জানানো হয়েছে।

খোকসা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রেবেকা খান জানান, সরেজমিন পরিদর্শনে লোকজনের সঙ্গে কথা বলে শতাধিক বাড়ি বিলীন হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে জানা গেছে। কৃষি জমির থেকে মানুষের বসতবাড়ি বেশি বিলীন হচ্ছে। তাদের তালিকা করা হচ্ছে। জরুরিভিত্তিতে তাদের চালসহ অনান্য সহায়তার জন্যে ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে। তাছাড়া বেশি ক্ষতিগ্রস্তদের খাস জমি বন্দোবস্ত দিয়ে পুনর্বাসনের আওতায় নেওয়া হবে। এছাড়া নদী ভাঙন প্রতিরোধে ব্যবস্থা নিতে পানি উন্নয়ন বোর্ডকে লিখিতভাবে অবহিত করা হচ্ছে।




আরও পড়ুন



১. প্রধান উপদেষ্টা ঃ এড. সাদির হোসেন (হাইকোর্ট আইনজীবি)
২. সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ মোঃ খায়রুল আলম রফিক
৩. নির্বাহী সম্পাদক ঃ প্রদীপ কুমার বিশ্বাস
৪. প্রধান প্রতিবেদক ঃ হাসান আল মামুন
প্রধান কার্যালয় ঃ ২৩৬/ এ, রুমা ভবন ,(৭ম তলা ), মতিঝিল ঢাকা , বাংলাদেশ । ফোন ঃ ০১৭৭৯০৯১২৫০
ফোন- +৮৮০৯৬৬৬৮৪, +৮৮০১৭৭৯০৯১২৫০, +৮৮০১৯৫৩২৫২০৩৭
ইমেইল- aporadhshongbad@gmail.com
(নিউজ) এডিটর-ইন-চিফ,
ইমেইল- khirulalam250@gmail.com
close