* পাট চাষে আগ্রহ হারাচ্ছে কৃষক সোনালী আঁশ পাট এখন বিলুপ্তির পথে!           * হালুয়াঘাটে নির্বাচন বয়কট           * হালুয়াঘাটে বিদ্যালয়ের ক্লাস বন্ধ রেখে স্কুল মাঠে সচিবকে সংবর্ধনা           * গোঁফে পানি লাগলে কি তা পান করা হারাম?           * আড্ডায় যেসব বিষয়ে গল্প করে মেয়েরা           * ব্রাউজিং করা যাবে ইন্টারনেট ছাড়াই!            * ‘আমি কিসের মধ্যে দিয়ে এখানে এসেছি কেউ জানে না’           * বিয়ে নয়, নিজের সন্তান চাইছেন প্রিয়াঙ্কা           * আবারও অসুস্থ পরীমনি           * শেষ ম্যাচে নাইজেরিয়ার বিপক্ষে যে সমীকরণ দাঁড়াল আর্জেন্টিনার           * দুর্নীতিবাজ বাদ, মনোনয়ন পাবে জনপ্রিয়রা: শেখ হাসিনা           * ৯ জেলায় সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ গেলো ৩৮ জনের           * বিশ্বকাপ উপলক্ষে রাশিয়ায় যৌন ব্যবসা হচ্ছে যেভাবে           * দৈহিকশক্তি বাড়ায় যেসব খাবার           *  প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর বাণী উন্নয়নের সূচকে বিশ্বের সেরা পাঁচে বাংলাদেশ: শেখ হাসিনা           * গান নিয়ে ঐশ্বরিয়ার আপত্তি!           * যে রাশির মেয়েরা স্ত্রী হিসাবে সবচেয়ে সেরা!           * শান্তিরক্ষার চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় বাংলাদেশ পুলিশ প্রতিশ্রুতিবদ্ধ           * জাপানের পার্লামেন্ট ভবনে মিলল গাঁজার গাছ           * নারী পাচারের বিরুদ্ধে প্রচার করতে গিয়ে ৫ নারী নাট্যকর্মী গণধর্ষণ          
* দুর্নীতিবাজ বাদ, মনোনয়ন পাবে জনপ্রিয়রা: শেখ হাসিনা           * ৯ জেলায় সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ গেলো ৩৮ জনের           *  প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর বাণী উন্নয়নের সূচকে বিশ্বের সেরা পাঁচে বাংলাদেশ: শেখ হাসিনা          

মদ্যপ স্বামীকে পেটাতে ভারতীয় নারীদের ব্যাট দিচ্ছে সরকার

নিজস্ব সংবাদদাতা | সোমবার, মে ১, ২০১৭
মদ্যপ স্বামীকে পেটাতে ভারতীয় নারীদের ব্যাট দিচ্ছে সরকার
 ভারতে নারী নির্যাতন স্বাভাবিক ঘটনায় পরিণত হয়েছে। আর নির্যাতনকারীদের মধ্যে শীর্ষস্থানে আছে মদ্যপ স্বামীরা। মদ খেয়ে বাড়ি এসে তারা ঘরের বউকে মারধোর করে। যেহেতু বিষয়টি পারিবারিক এবং মান সম্মানের ভয়েও অনেক নারী স্বামীর নির্যাতন মুখ বুজে সহ্য করে। তবে অধ:পতিত মদ্যপ স্বামীদের হাত থেকে নারীদের রক্ষা করতে উদ্যোগ নিয়েছে ভারতের মধ্যপ্রদেশ রাজ্য সরকার। নারীদের হাতে ধরিয়ে দেওয়া হচ্ছে একটি করে ক্রিকেট ব্যাট সদৃশ কাঠের তৈরী ডান্ডা। এটি দিয়ে বলের পরিবর্তে তারা স্বামী পেটাবেন।

জানা গেছে, মধ্যপ্রদেশে একটি গণবিয়ের আয়োজন করা হয়। যেখানে প্রায় ৭০০ জোড়া যুবক-যুবতি বিয়ের পিড়িতে বসে। আর এ বিয়েতে রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে নববিবাহিত নারীদের মধ্যে একটি করে কাঠের ব্যাট বিতরণ করা হয়। ব্যাটের গায়ে লেখা আছে ‘মদ্যপ স্বামীদের পেটাও, পুলিশ কিছু বলবেনা’। অর্থাৎ এই ব্যাট দিয়ে নারীরা তাদের অত্যাচারী স্বামীদের শায়েস্তা করবে। আর এ নিয়ে কোন আইনি ঝামেলা হবেনা। জানা গেছে, এ ধরণের ব্যাট দিয়ে ধোপারা কাপড় পরিষ্কার করতো। পর্যায়ক্রমে এ ধরণের ব্যাট প্রদেশটির সব নারীর কাছেই বিতরণ করা হবে।

ফরাসী ভিত্তিক একটি সংবাদমাধ্যমকে দেওয়া এক সাক্ষাতকারে প্রদেশটির গ্রামোন্নয়ণ মন্ত্রী গোপাল ভারগাব বলেন, ‘মূলত গ্রামীন সমাজে সচেতনতা সৃষ্টির জন্য আমাদের এই উদ্যোগ। কারণ গ্রাম্য নারীরা প্রায় সময়ই মদ্যপ স্বামীদের নির্যাতনের স্বীকার হয়।’

গোপাল আরও বলেন, ‘প্রায় সময়ই নারীরা অভিযোগ নিয়ে আসেন যে, তাদের স্বামীরা তাদের মারধোর করেছে এবং তাদের জমানো টাকা জোর করে নিয়ে মদ খেয়ে উড়িয়েছে।’

মন্ত্রী মনে করেন, এই ধরণের উদ্যোগে নারীদের আসলে অপরাধ করতে প্ররোচিত করা হচ্ছেনা, বরং তাদেরকে বিশৃঙ্খলা ঠেকানোর দায়িত্ব দেওয়া হচ্ছে। ইতোমধ্যেই আরও অন্তত ১০ হাজার ব্যাট নির্মাণের অর্ডার করা হয়েছে।

রাজ্যটিতে পুরুষদের মধ্যে ব্যাপকহারে মদ্যপ থাকায় চিন্তিত হয়ে পড়েছিলো কতৃপক্ষ। তারা মনে করছে পুরুষকে মদের কাছ থেকে ফেরাতে সবচেয়ে বড় ভূমিকা রাখতে পাবরে নারীরাই।

প্রদেশটিতে গোলাবী গ্যাং নামে একটি নারীবাদি সংগঠন ইতোমধ্যেই মদবিরোধী প্রচার প্রচারণা চালাচ্ছে। হাতে কাঠের ডান্ডা নিয়ে তারা বিভিন্ন এলাকায় মদের ডিলারদের খুঁজে বেড়ায় এবং কোন শুড়িখানা দেখলেই তার গুড়িয়ে দেয়।

ভারতের বিভিন্ন প্রদেশে মদ্যপান বিরোধী প্রচার প্রচারণা শুরু হয়েছে। কয়েকটি প্রদেশে এটি নিষিদ্ধের প্রক্রিয়া চলছে। দেশটির ক্রাইম রেকর্ড ব্যুরোর তথ্যমতে, দেশটিতে ২০১২ থেকে ২০১৫ সালের মধ্যে নারী নির্যাতন ৩৪ শতাংশ বেড়েছে। আর এর নেপথ্যে সবচেয়ে বড় ভূমিকা রেখেছে মদ্যপান।

অনেকেই বলছেন, মদ্যপ স্বামীকে উচিৎ শিক্ষা দিতে নারীদের হাতে যে কাঠের ডান্ডা তুলে দেওয়া হচ্ছে, তা হাত বদল না হলেই হলো। দ্য ইনডিপেন্ডেন্ট, টেলিগ্রাফ




আরও পড়ুন



প্রধান সম্পাদকঃ
ড. মো: ইদ্রিস খান

সম্পাদক ও প্রকাশকঃ
মোঃ খায়রুল আলম রফিক

সিয়াম এন্ড সিফাত লিমিটেড
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ৬৫/১ চরপাড়া মোড়, সদর, ময়মনসিংহ।
ফোন- +৮৮০৯৬৬৬৮৪, +৮৮০১৭৭৯০৯১২৫০, +৮৮০১৯৫৩২৫২০৩৭
ইমেইল- aporadhshongbad@gmail.com
(নিউজ) এডিটর-ইন-চিফ,
ইমেইল- khirulalam250@gmail.com
close