*  বিবর্ণ মোস্তাফিজ, শেষ ম্যাচে হেরে বিদায় মুম্বাইয়ের           * সরিষাবাড়ী পৌর মেয়র অবরুদ্ধ           *  গাজীপুরে দেড় ঘণ্টায় সড়কে পা হারালেন দুই যুবক           *  ঝিনাইদহে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে ব্যবসায়ীর মৃত্যু           *  আদিতমারীতে ফেনসিডিলসহ আটক ১           *  বিয়ের জন্য ছেলে পাচ্ছি না: কারিশমা           * যোদ্ধা রানির বেশে এ কোন সানি?           * নিউ ইয়র্ক পুলিশে পাগড়ি পরা নারী পুলিশ           * আমরা হালুয়াঘাটেই অনেক ভালো আছি -ইউএনও জাকির হোসেন            *  রমজানের পবিত্রতা রক্ষায় ক্লিন নড়াইল গ্রীন নড়াইল গড়তে সম্মিলিতভাবে কাজ করছেন ডিসি-এসপি           * নিশোর ‘অনুভবে’ ফারিয়া-মোনালিসা           * এরদোয়ান বিতর্কে ওজিলদের ডাকলেন জার্মান প্রেসিডেন্ট           * নাটোরে নসিমন নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে যাত্রী নিহত           * ইফতারের সময় দোয়া কবুলে প্রিয়নবির ঘোষণা           * সহজেই ব্যাটসম্যানদের দুর্বলতা ধরতে পারে মোস্তাফিজ: রোহিত শর্মা            * শেরপুর থেকে কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরীকে প্রত্যাহারের সিদ্ধান্ত            * ইফতারে মুড়ি কেন খাবেন            * গ্রামের মানুষ বেশি সুখী: গবেষণা           * তবে কী সালমানের পথেই হাঁটছেন বরুণ ধাওয়ান           * গাজীপুরে তিন ব্যবসায়ীকে জরিমানা          
* তারেকের নোটিশের জবাব দিলেন না শাহরিয়ার           * সৌদি থেকে ৬৬ নারী শ্রমিক দেশে ফিরেছেন           *  যশোরে র‌্যাবের সঙ্গে কথিত বন্দুকযুদ্ধে নিহত ৩          

ঠাণ্ডা পানি খাচ্ছেন? আরেকবার ভাবুন

জাহান | শনিবার, মে ২৭, ২০১৭
ঠাণ্ডা পানি খাচ্ছেন? আরেকবার ভাবুন
গরমের দিন।এসময়ের সবচেয়ে পরিচিত দৃশ্য হলো, ফ্রিজ খুলে ঢক ঢক করে ঠাণ্ডা পানি খাওয়া। সারা দুনিয়া চরে বেড়িয়ে ঘরে ফিরেই হোক কিংবা রাস্তার ধারের দোকান থেকেই হোক। খুব স্বাভাবিক ভাবেই এ সময়ে শরীরের পানির চাহিদা বেড়ে যায় অনেক। ফলে শরীরের প্রয়োজনেই দরকার হয় পানি পানের। কিন্তু শরীরে চাহিদার চেয়েও বড় হয়ে দাঁড়ায় ঠাণ্ডা পানিতে বুকের ছাতি শীতল করার তৃপ্তিটুকু। আর সেজন্যই গরমে সবার সবচেয়ে বড় চাওয়া  ঠাণ্ডা পানি। ঠাণ্ডা পানি ছাড়া যেন আমরা চলতেই পারি না। কিন্তু এই গরমে ঠাণ্ডা পানি পান করাটা আসলে কতটা নিরাপদ? এ বিষয় নিয়ে ঢাকাটাইমসের সঙ্গে কথা হয় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিসিন বিভাগের সহযোগী আধ্যাপক ডা. ফেরদৌস উর রহমানের সঙ্গে। তিনি ঢাকাটাইমসের পাঠকদের জানান ঠান্ডা পানির উপকার তো নেইই বরং শরীরের অনেক ধরনের ক্ষতি করে। তার মধ্যে সবচেয়ে বড় ক্ষতি করে হার্টের। তাছাড়া হজমের সমস্যা, ঠাণ্ডা লাগা, সাইনাস ব্লকেজ, এসবও ঠাণ্ডা পানির কারণেই হয়।

হার্ট এর সমস্যাঃ ঠাণ্ডা পানি পানের কারণে সবচেয়ে বড় ক্ষতি হয় হার্টের। গরম থেকে এসেই ঠাণ্ডা পানি পান করলে শরীরের শিরা উপশিরা সঙ্কুচিত হয়ে যায়। ফলে স্বাভাবিক রক্ত সঞ্চালন করতে হার্টের উপর বাড়তি চাপ পড়ে। এই বাড়তি চাপ হার্টের জন্য একেবারেই ভালো না। সাথে সাথেই কোনো সমস্যা দেখা না দিলেও, দীর্ঘমেয়াদে জটিল হৃদরোগ দেখা দিতে পারে।

জ্বর হওয়ার ক্ষেত্র প্রস্তুত করে: আমাদের শরীরের স্বাভাবিক তাপমাত্রা ৯৮.৬ ডিগ্রি ফারেনহাইট। কিন্তু ঠাণ্ডা পানি পান করলে আমাদের রক্ত হঠাৎ করেই শীতল হয়ে যায়। ফলে শরীরে ভেতরের অংশে হঠাৎ করেই অনাহুত অস্বস্তি দেখা দেয়। এধরনের অস্বস্তি জ্বরের ক্ষেত্র প্রস্তুত করে দেয়।

শরীরে পর্যাপ্ত পানির চাহিদা পূরণ হয় না: ঠাণ্ডা পানিতে ত্ষ্ণা মেটে চট করে, তৃপ্তি চলে আসে তাড়াতাড়ি। ফলে শরীর মনে করে তার আর পানি পানের প্রয়োজন নেই।ফলে শরীরের প্রয়োজনীয় পানির চাহিদা মেটে না। এ ঘাটতি থেকে পানিশূন্যতা তৈরি হয় যা শরীরের জন্য ক্ষতিকর।

টনসিলের সমস্যা হতে পারেঃ ঠাণ্ডা পানিতে সহজে ঠাণ্ডা লাগার সম্ভাবনা থাকে ফলে টনসিল ফুলে গিয়ে সমস্যা হতে পারে।

খনিজের অনুপস্থিতিঃ সাধারণ পানি স্বাভাবিক অবস্থায় বিভিন্ন ধরনের খনিজ উপাদানে পূর্ণ থাকে। যা আমাদের শরীরের জন্য খুবই উপকারি। কিন্তু পানি ঠাণ্ডা হয়ে গেলে এসব খনিজ উপাদানের কার্যকারিতা কমে যায়। তখন শরীরের জন্য এরা আর কোনো কাজ করতে পারে না। ফলে পানি থেকে শরীরের যে খনিজের চাহিদা পূরণ হয় সেটা অপূর্ণই থেকে যায়।

ঠাণ্ডা পানিতে হজমের সমস্যা হয়ঃ ঠাণ্ডা পানি পান করার ফলে পাকস্থলী খাবার হজমের চাইতে ঠাণ্ডা পানিকে শরীরের তাপমাত্রায় নিয়ে আসতে বেশি ব্যস্ত হয়ে পড়ে। ফলে পাকস্থলীর যে মূল দায়িত্ব সেই খাবার হজমের প্রক্রিয়ায় ছেদ পড়ে, হজমে সমস্যা দেখা দেয়।

শরীরের শক্তি ক্ষয় করেঃ আমাদের শরীরের তাপমাত্রা যেহেতু স্বাভাবিক মাত্রায় ৯৮.৬  ডিগ্রি ফারেনহাইট। তাই ঠাণ্ডা পানি যখন পাকস্থলীতে জমা হয় তখন পাকস্থলী তা শরীরের তাপমাত্রায় নিয়ে আসে।ফলে শরীরের অহেতুক শক্তি খরচ হয়।

ব্যায়ামের পরে ঠাণ্ডা পানি ক্ষতিকরঃ ব্যায়ামের পরে কক্ষতাপমাত্রা বা তার চেয়ে গরম পানি খাওয়া ভাল। কারণ ঠাণ্ডা পানি খেলে তা শরীরে দ্রুত শোষিত হয়। ফলে শরীরে পানির চাহিদা পূরণ হয় না।

দাঁতের ক্ষতি হয়: ঠাণ্ডা পানি দাঁতের এনামেলের ক্ষতি করে মারাত্মক ভাবে।গরম থেকে ঠাণ্ডা পানির সংস্পর্শে আসা মাত্রই দাঁতের বহিরাবরণ সংকুচিত হয়। ফলে এনামেলে ফাটল ধরে। এছাড়া মাড়ি ক্ষয়ের অন্যতম একটি কারণও ঠাণ্ডা পানি।

গর্ভপাতের সম্ভাবনাঃ গর্ভাবস্থায় অতিরিক্ত ঠাণ্ডা পানি পান করলে গর্ভপাতের ঝুঁকি বেড়ে যায়। ঠান্ডা পানি পান করার ফলে জরায়ুর সঙ্কোচন হয়। গর্ভাবস্থায় এধরনের সঙ্কোচন গর্ভপাতের ঝুঁকি বহুগুণে বাড়িয়ে দেয়।




আরও পড়ুন



প্রধান সম্পাদকঃ
ড. মো: ইদ্রিস খান

সম্পাদক ও প্রকাশকঃ
মোঃ খায়রুল আলম রফিক

সিয়াম এন্ড সিফাত লিমিটেড
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ৬৫/১ চরপাড়া মোড়, সদর, ময়মনসিংহ।
ফোন- +৮৮০৯৬৬৬৮৪, +৮৮০১৭৭৯০৯১২৫০, +৮৮০১৯৫৩২৫২০৩৭
ইমেইল- aporadhshongbad@gmail.com
(নিউজ) এডিটর-ইন-চিফ,
ইমেইল- khirulalam250@gmail.com
close