* গফরগাঁওয়ে কলেজছাত্রী অপহৃত, ১০ লাখ টাকা দাবি           * রোজ রাতে অন্য মেজাজের এক নারীরূপে!            *  বিশ্ব ব্যাংক প্রেসিডেন্টের মানব সম্পদে বিনিয়োগ বাড়ানোর আহ্বান            * মিয়ানমার বাংলাদেশের অর্থনীতিকে ধ্বংস করে দেবে: মুহিত           * ভাঙ্গায় তালবীজ রোপন কর্মসুচীর উদ্ভোধন           *  বংশাই-ঝিনাই নদীতে ভাঙন           *  সিলেটে ফুটপাত দখলকারীদের তালিকা আদালতে           * ডিজিটাল মার্কেটিংয়ে স্বীকৃতি পেল আয়নাবাজি           *  খুলনায় স্ত্রী হত্যায় স্বামীর ফাঁসি           *  স্কুল কলেজ জাতীয়করণ ও এমপিও ভুক্তির দৃশ্যপট এ.কে.এম শামছুল হক রেনু           * এবার অতিথি হিসেবে অপু বিশ্বাস           * কেন হাত ধোয়া দরকার           * বড় পরিকল্পনা নিতে হবে সফল হতে            * প্রতিদিন ১০০ রোহিঙ্গাকে ফিরিয়ে নেওয়ার পরিকল্পনা মিয়ানমারের!           * আত্মজীবনীতে প্রণব মুখার্জি ভেবেছিলাম প্রধানমন্ত্রী করা হবে আমাকে            *  ভূতের মুখে রাম নাম একটু দাঁড়ান!           * নড়াইলে বিএনপির ১৫০ নেতাকর্মীর নামে বিস্ফোরক আইনে মামলা           *  পত্নীতলায় বন্যা ক্ষতিগ্রস্থদের পূর্নবাসন সহযোগিতা হিসাবে ঢেউ টিন প্রদান           * ঘরবন্দি থেকে মরো অথবা পালাও বাংলাদেশে           * জামালপুরে ভুয়া সেনা সদস্য আটক          
* গফরগাঁওয়ে কলেজছাত্রী অপহৃত, ১০ লাখ টাকা দাবি           * মিয়ানমার বাংলাদেশের অর্থনীতিকে ধ্বংস করে দেবে: মুহিত           *  ক্রসফায়ারে নিহত বন্দুক শাহীনের উত্থান যেভাবে          

ময়মনসিংহে অবৈধ অস্ত্রের বিস্তার

ময়মনসিংহ | বুধবার, জুন ৭, ২০১৭
ময়মনসিংহে অবৈধ অস্ত্রের বিস্তার

ময়মনসিংহের হালুয়াঘাট, ধোবাউড়া, নেত্রকোনা, জামালপুর, শেরপুরও ব্রাহ্মনবাড়িয়া সীমান্ত দিয়ে ময়মনসিংহে ঢুকছে অবৈধ পিস্তলসহ ক্ষুদ্র অস্ত্র ।মেইড ইন ইউএসএ লেখা এসমমস্ত পিস্তল ৩০ থেকে ৪০ হাজার টাকায় বিক্রি হচ্ছে ্।

ঐসব সীমান্তে খুব একটা ধরা না পড়লেও ময়মনসিংহ শহর ও আশপাশ থেকে প্রায়ই অবৈধ অস্ত্র উদ্ধারের খবর জানা যায়।তবে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা স্বীকার করেন, চোরাচালান হয়ে আসা অস্ত্রের তুলনায় আটক হওয়া অস্ত্রের পরিমাণ অনেক কম। চোরাচালানে আসা অবৈধ অস্ত্রের খুব কমই ময়মনসিংহে থাকে। তার পরও যে পরিমাণ অস্ত্র থেকে যায়, তা-ই ময়মনসিংহকে অশান্ত করে রাখে। অবৈধ অস্ত্রধারীরা রাজনৈতিক আশ্রয় প্রশ্রয় নিজেদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করে। প্রকাশ্যে অস্ত্রের মহড়া চালান, করে গুপ্ত খুন।সীমান্তে অন্য অনেক চোরাচালান পণ্য আটক হলেও অস্ত্র খুব একটা ধরা পড়েনা বলে স্বীকার করেন ঐসব সীমান্তে অবস্থানকারী বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) ব্যাটালিয়ন ।

তারা বলেন, অস্ত্র চোরাচালানকারীরা সাধারণত একসঙ্গে একটা-দুইটার বেশি অস্ত্র বহন করে না। ফলে সীমান্তের যেকোনো দিক দিয়েই আসা-যাওয়ার সুবিধাটা ব্যবহার করতে পারে তারা।বিজিবি সূত্রে জানা গেছে, সাম্প্রতিক সময় চোরাচালানসামগ্রী আটক করা হলেও অস্ত্র বলতে খবুই সামান্য ।ময়মনসিংহে র‌্যাব- ১৪ বাহিনীর হাতে গতকালও শহরতলী এলাকা থেকে নজরুর নামের এক সন্ত্রাসীকে বিদেশি পিস্তলসহ গ্রেপ্তার করেছে ।ময়মনসিংহের ধোবাউড়া, হালুয়াঘাট, শেরপুর, নেত্রকোনা, জামালপুরের বিস্তীর্ণ সীমান্ত জুড়ে বিস্তৃত ভারতীয় সীমান্ত দিয়ে প্রতিদিন অবৈধ অস্ত্রসহ বিভিন্ন চোরাচালান পণ্য ময়মনসিংহে ঢুকছে।

অবৈধ অস্ত্র, সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ বিষয়ের গবেষকরা বলছেন, অস্ত্র উদ্ধারের প্রাপ্ত ৃৃতথ্য-উপাত্ত থেকে ধারণা করা যায়, ইউএসএ নির্মিত অনেক  সীমান্তের মধ্যে বড় একটি অংশ এসব ভারদের সীমান্ত দিয়ে ময়মনসিংহে অস্ত্র আসছে। আকারে ছোট হ্ওয়া চোরাই পথে এসব অস্ত্র আনা সহজ হয় এবং সহজে লুকিয়ে রাখা যায় বলে ব্যবহারকারীরাও এসব অস্ত্র বেশি পছন্দ করে।ময়মনসিংহে অস্ত্রের বাজার আছে এ কথাটা এখানে বেশ আলোচিত। তবে এই বাজারে কীভাবে কেনাবেচা হয়, তা জানা নেই বেশির ভাগ মানুষের।আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, সাধারণত দালালেরা ক্রেতা ও বিক্রেতার যোগাযোগ ঘটিয়ে দেয়।

বিক্রেতারা মাল দেওয়াার আগেই টাকা আদায় করে নেয়। হয়তো তারা ময়মনসিংহ শহরের কোন এলাকায় টাকাটা নেবে। টাকা নেওয়ার পর শহরের বাইরের কোনো এলাকা থেকে অস্ত্রটি সংগ্রহ করতে বলবে, সেটা হতে পারে জেলার উপজেলাগুলির কোনো এলাকা। আজকাল অবশ্য হাতে হাতে টাকা নেওয়ার বদলে বিকাশের মাধ্যমেও টাকা নিচ্ছে। ক্রেতা নির্ধারিত দিনে নির্ধারিত এলাকায় গিয়ে অপেক্ষা করতে শুরু করলে হঠাৎ একটা ফোন পেতে পারে। ফোনে তাঁকে হয়তো আরও ১০০ গজ সামনে গিয়ে বটগাছতলায় দাঁড়াতে বলা হবে।

বটতলায় দাঁড়ালে আবার ফোন আসবে এবং এবার ক্রেতাকে বলা হবে, ডানে তাকিয়ে রাস্তার পাশের কচুগাছগুলো দেখেন। ভালো করে দেখেন, একটা কচুর পাতা ভাঙা আছে, পাতার নিচে হাত দিন।ময়মনসিংহ র‌্যাব- ১৪ কর্মকর্তারা বলেন, র‌্যাব প্র্য়াই ক্রেতাকে অনুসরণ করে অস্ত্র বিক্রেতাদের ধরার চেষ্টা করে। আর তাই ক্রেতার হাতে অস্ত্র তুলে দেওয়ার সময় বিক্রেতারা এমন অভিনব অনেক কৌশল গ্রহণ করছে।

ময়মনসিংহের সচেতন নাগরিকরা বলছেন, দেশের অন্য সব জেলা শহরের তুলনায় ময়মনসিংহের সন্ত্রাসীরা অনেক বেশি সশস্ত্র। প্রায়ই এখানে অস্ত্রের ঝনঝনানি শোনা যায়। সারা দেশের মতো ময়মনসিংহে অবৈধ অস্ত্রধারী সন্ত্রাসীরা রাজনৈতিক পৃষ্ঠপোষকতা পাচ্ছে। রাজনীতিবিদেরা নিজেদের আধিপত্য ধরে রাখতে এ কাজ করেন। অস্ত্রৃৃৃৃৃধারীরাও ডাকাতি, ছিনতাই, মাদক ব্যবসা চালানোর কাজে রাজনীতিবিদদের ব্যবহার করে।





আরও পড়ুন



প্রধান সম্পাদকঃ
ড. মো: ইদ্রিস খান

সম্পাদক ও প্রকাশকঃ
মোঃ খায়রুল আলম রফিক

সিয়াম এন্ড সিফাত লিমিটেড
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ৬৫/১ চরপাড়া মোড়, সদর, ময়মনসিংহ।
ফোন- +৮৮০৯৬৬৬৮৪, +৮৮০১৭৭৯০৯১২৫০, +৮৮০১৯৫৩২৫২০৩৭
ইমেইল- aporadhshongbad@gmail.com
(নিউজ) এডিটর-ইন-চিফ,
ইমেইল- khirulalam250@gmail.com
close