*  নিজ বাড়িতে নকলা উপজেলা চেয়ারম্যানের ঝুলন্ত লাশ           *  অন্ধত্বঃ ‘মার্কিন সামাজ্র্যবাদ’ বুলি--মাহমুদুল বাসার           * ইসি সংলাপে কোনো প্রস্তাব দেয়নি মঞ্জুর জেপি           *  এবার আফগান সেনাঘাঁটিতে তালেবান হামলা, নিহত ৪৩           *  মাননীয় আদালত, আমি কার কাছে যাব: খালেদা           *  গৌরীপুরে নৌকার আগামী সম্ভাবনা           * ফরিদপুরে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা অভিযান           * আবারও সুযোগ পেলে উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখবো- এমপি সালাহউদ্দিন মুক্তি           *  ২৪ বছর ধরে কথা বলেন না সানি-শাহরুখ            * ‘ভূমি’তে ব্যর্থ সঞ্জয় বাদ পরবর্তী ছবিতে           * জামালগঞ্জে কিশোরীদের বর্ণাঢ্য নৌকাবাইচ           * বিমানবন্দরে জড়ো হচ্ছেন বিএনপির নেতাকর্মীরা           * রোহিঙ্গা ইস্যুতে রাশিয়া-চীনও পাশে আছে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী           * সিইসিকে সতর্ক হয়ে কথা বলার পরামর্শ আ.লীগের           * বাণিজ্যিকরণে মিলবে ডিজিটাল বাংলাদেশের সুফল’           * লিটন স্পেশালিস্ট ব্যাটসম্যান, কিপিংয়ে মুশফিক!           * মিয়ানমারের ‘কৌশলগত’ বন্দরের ৭০% মালিকানা পাচ্ছে চীন           * ভোটের আগে কেনিয়ায় নির্বাচন কমিশনারের পদত্যাগ           *  বঙ্গবন্ধুর পিএস অনুর মৃত্যু, প্রধানমন্ত্রীর শোক           *  ভালুকায় ছিনতাইকারী ধরতে গিয়ে পুলিশ গুলিবিদ্ধ          
*  নিজ বাড়িতে নকলা উপজেলা চেয়ারম্যানের ঝুলন্ত লাশ           *  গৌরীপুরে নৌকার আগামী সম্ভাবনা           *  ভালুকায় ছিনতাইকারী ধরতে গিয়ে পুলিশ গুলিবিদ্ধ          

জামায়াত- ছাত্রশিবির , জঙ্গি ও ধর্মীয় উগ্রপন্থীদের তৎপরতা

আনিছুর রহমান | শনিবার, সেপ্টেম্বর ২৩, ২০১৭
জামায়াত- ছাত্রশিবির , জঙ্গি ও ধর্মীয় উগ্রপন্থীদের  তৎপরতা
ময়মনসিংহের ১৪ উপজেলার জামায়াত সমর্থিত নেতা- কর্মী, ধর্মীয় উগ্রপন্থী ও জঙ্গিরা এখানকার আঞ্চলিক ও জাতীয় পত্রিকা ও অনলাইনগুলির আশ্রয় - প্রশ্রয় ও মদদে দাপিয়ে বেড়াচ্ছে সরকারের প্রতিটি সেক্টরে ।
নিজেরা তাদের অবৈধ কমান্ড আড়াল করতে পত্রিকার প্রতিনিধিসহ নানান পদবী ব্যবহার করে প্রশাসন এবং আইন- শৃঙ্খলা বাহিনীর চোখকে ফাঁকি দিয়ে তাদের নেটওয়ার্ক সুদূরপ্রচারি করে যাচ্ছে বলেও অভিযোগ উঠেছে ।
জঙ্গি কার্যক্রম, সরকার বিরোধী প্রচারনা , আইন শৃঙ্খলা বাহিনীকে কোনঠাসা, প্রকৃত সাংবাদিক ও সংবাদপত্রগুলোকে প্রশ্নবিদ্ধ করতে নানান ষড়যন্ত্রে লিপ্ত রয়েছে ।

সূত্রগুলো থেকে প্রাপ্ত তথ্যে জানা গেছে, জামায়াত সমর্থিত সাংবাদিকরা ইতিপূর্বে বিভিন্ন কলেজ- বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্র রাজনীতি তথা জামায়াত শিবিরের নেতা কিংবা ক্যাডার হিসাবে পরিচিত ছিল । এখন তারা বিভিন্ন পত্রিকার ময়মনসিংহ প্রতিনিধি । এদের কেউ মেধা আবার কেউ মোটা  অংকের টাকা ব্যয় করে বাগিয়ে আনছেন ঐসব পত্রিকার নিয়োগপত্র এবং কার্ড ।
এরা শিবিরের একসময়ে নেতা- কর্মী ক্যাডার হিসাবে ব্যাপক পরিচিত ছিলো । এখন নামী সাংবাদিক হিসাবে পরিচিত করে নেয়ায় কেউ এদের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ  করার সাহস পাচ্ছে না । আবার এদের কেউ সরকার দলীয় নেতাদের প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষ সহযোগীতা পাওয়ায় বুকফুলিয়ে নিজেদের সরকারদলীয় দাবি করে ভীতির সৃষ্টি করে যাচ্ছে ।
ময়মনসিংহ থেকে প্রকাশিত একটি পত্রিকার সম্পাদক , অপরাপর পত্রিকার ডেস্কে এবং প্রতিনিধি হিসাবেও এরা সাংবাদিকতার পাশাপাশি তাদের দলীয় কার্যক্রম সুনিপুন আর সুকৌশলে চালিয়ে যাচ্ছেন । জামায়াতের গোপন মিটিং, ঝটিকা মিটিং , বিক্ষোভ মিছিল এবং এদলের সকল কর্মকান্ডের খবর তাদের হাতে আগেই পোঁছে যাচ্ছে ।
সেসব প্রোগ্রাম সাজানোর সময় এই নামধারী সাংবাদিক জামায়াতের এজেন্টরা উপস্থিথ থাকেন । তাদের দলীয় নেতা- কর্মী, ক্যাডাররা আইন- শৃংঙ্খলা বাহিনীর হাতে গ্রেপ্তার হলে নিজেদের পরিচয়পত্র দেখিয়ে তাদেরকে ছাড়িয়ে আনতে দৌঁড়ঝাপ শুরু করে দেন । তারা  আইন- শৃংঙ্খলা বাহিনীকে েেগ্রপ্তারদের বিষয়ে বোঝানোর চেষ্টা করেন, তারা সরকার সমর্থিত ।
এতে প্রশাসনের মাঝে ধু¤্রজালের সৃষ্টি হয় । এদের একটি অংশ আবার সরকারি দল আওয়ামীলীগ এবং অঙাগ সংগঠনে মিশে গেছে । তারা আওয়ামীলীগে সম্পৃক্ত হয়ে আওয়াীলীগের সর্বনাষ করে বেড়াচ্ছে । এমন অভিযোগ ক্ষোদ আওয়ামীলীগৈর ত্যাগী নেতা- কর্মীদের । তাদের অভিযোগ, জামায়াত সমর্থিতরা এতটাই ধূর্ত ও বিষাক্ত সাপের মত যে, ওরা কখনও কখনও আমাদেরকেই প্রশ্নবিদ্ধ করে ফেলে । এক্ষেত্রে আমরাই ভেজাল আওয়ামীলীগ আর  ওরাই ত্যাগি হিসাবে প্রমাণ করতেও সক্ষম হয় । ময়মনসিংহে বিগত সময়গুলিতে আইন- শৃংঙ্খলা বাহিনীর হাতে গ্রেপ্তার জঙ্গি সংগঠনগুলোর নেতা- কর্মীদের ছাড়াতে এরা ব্যাপক তদবির করেছেন বলেও অভিযোগ আছে ।  
খোঁজ খবর নিয়ে জানা গেছে এবং ভূক্তভোগীরা বলছেন, জেলার সদর উপজেলা, মুক্তাগাছা, ফুলপুর, হালুয়াঘাট, তারাকান্দা, গফরগাঁও, ি ত্রশাল, ফুলবাড়ীয়া,  গৌরীপুর, নান্দাইল,  ধোবাউড়া, ঈশ্বরগঞ্জ ও উপজেলার বিভিন্ন সংবাদিকদের সংগঠন প্রেসক্লাব থেকে শুরু করে সকল সংগঠনের সাথেই এই জামায়াত চক্র জড়িত আছে ।
এদেরকে নিয়ে বিভ্রান্তিতে আছেন সাংবাদিকরাও । সহকর্মী হিসাবে নিজেদের পারিবারিক ও সামাজিকভাবে সম্পৃক্ততা থাকায় কখনও কখনও তারাও প্রতিবাদ করেননা এসব জামায়াত সংগঠকদের সাথে । ময়মনসিংহ শহরে‘  টক অফ দি  টাউন ’ একটি ক্লিনিককে নিয়ে । ক্লিনিকটি প্রতিবছর ঘটা করে তাদের সমর্থিতদের দিয়ে সাংবাদিকদের সমবেত করেন । জানা যায়, সংগঠনটি জামায়াত পরিচালণার অর্থভান্ডার । এই প্রতিষ্ঠানটি দিয়েও তৈরি হয়, তাদের সমর্থিত সাংবাদিক ।
জেলার ত্রিশালে  একজন ছাত্রশিবিরের  নেতা । তিনি দেশের আলোচিত জঙ্গি ছিনতাই ঘটনায় জড়িত ছিলো বলে শোনা যায় । সেই তিনিই প্রথমে সাংবাদিক পরিচয় দিয়ে প্রতিষ্ঠিত হন । এখন তিনি নাকি যুবলীগের নেতা । এই নেতা পত্রিকায় বিজ্ঞাপন দিয়ে নিজেকে মাহামানব হিবাবে প্রতিষ্ঠিত করতে মড়িয়া হয়ে উঠেছেন ।
গোয়েন্দা সংস্থাগুলোর একাধিক কর্মকর্তা এবং আওয়ামীলীগের নেতা কর্মী নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক জানান, জামায়াত থেকে নির্দেশ দেয়া আছে । তারা অর্থ দিয়ে সহযোগীতা করছে এইসব নামধারী সাংবাদিকদের , তারা যেন আওয়ামীলীগ সমর্থিত এসব প্রচার করে সরকারের বড় বড় কর্মকর্তা, আওয়ামীলীগের বড় বড় নেতা- কর্মীদের সাথে নিয়ে ছবি তুলে ফেসবুকে ও ইন্টারনেটে প্রচার করতে । এতে তাদের জন্য সুবিধা হয় । নিজেদেরকে আওয়ামীলীগ হিসাবে প্রমাণ করতে । এসব ছবি জামায়াত নেতাদের বাড়িতে রেখে তাদের গোপন সাংগঠনিক কার্যক্রম নির্ধিদায় পরিচালনা করে যাচ্ছেন ।
ঐসব ছবি পূঁজি করে অধিকাংশ ক্ষেত্রে বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রীর ছবিও টাঙিয়ে রাখছেন । আইন- শৃঙ্খলা বাহিনী ঐসব আস্তানায় হানা দিলে , তাদের টাঙানো ছবি দেখে বিভ্রান্তিতে পড়ে যান । অনেক সময় আইন- শৃঙ্খলা বাহিনী তাদেরকে গ্রেপ্তার করলেও সাংবাদিক নামধারী এসব সাংবাদিকরা তাদেরকে আওয়ামীলীগ দাবি করে ছাড়াতে মড়িয়া হয়ে উঠেপড়ে লাগেন । এইসব জঙ্গি জামায়াতের পাশাপাশি ধর্মীয় উগ্রপন্থী রাজনৈতিক দলগুলিরনেতা- কর্মীরাও একই কায়দায় সাংবাদিক পরিচয়ে দাপিয়ে বেড়াচ্ছেন ।
প্রশাসনকে বিভ্রান্ত করতে প্রকৃত সাংবাদিকদেরকেও এরা প্রশ্নবিদ্ধ পাশাপাশি কোনঠাসা করে রেখেছেন । অনেক সময় প্রশাসনের অনেক কর্মকর্তাদের সাথে গাড়িতে চড়েন, একসাথে বিভিন্ন প্রোগ্রামে অতিথি হয়ে যান । প্রশাসনেও একটি অংশ এখনও আছেন । যারা জামায়াতের ভুত । এরাও অনেক ক্ষেত্রে তাদেরকে সহযোগীতা ও সেল্টার দিয়ে যাচ্ছেন । যে কারণে প্রশাসন সুষ্ঠুভাবে তাদের কার্যক্রম পরিচালনা করতে হিমশিম খাচ্ছেন । প্রকৃত আওয়ামীলীগ সমর্থিত সরকারি কর্মকর্তাদেরও এরা হয়রানি করেন ।
ময়মনসিংহে কর্মরত গোয়েন্দা কর্মকর্তাদের অভিমত ,  এইসব সাংবাদিকদের গত ২০ বছরের কার্যক্রম খোঁজ খবর নিলেই বেড়িয়ে আসবে আসলে তারা কে ?




আরও পড়ুন



প্রধান সম্পাদকঃ
ড. মো: ইদ্রিস খান

সম্পাদক ও প্রকাশকঃ
মোঃ খায়রুল আলম রফিক

সিয়াম এন্ড সিফাত লিমিটেড
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ৬৫/১ চরপাড়া মোড়, সদর, ময়মনসিংহ।
ফোন- +৮৮০৯৬৬৬৮৪, +৮৮০১৭৭৯০৯১২৫০, +৮৮০১৯৫৩২৫২০৩৭
ইমেইল- aporadhshongbad@gmail.com
(নিউজ) এডিটর-ইন-চিফ,
ইমেইল- khirulalam250@gmail.com
close