* গৌরীপুরে গৃহবধুকে মধ্যযুগী কায়দায় নির্যাতন হাসপাতালে ভর্তি !           * চট্টগ্রামের সেই ইউসুফ মারা গেছেন           * নড়াইলের মানচিত্র থেকে হারিয়ে যেতে বসেছে জমিদার বাবুদের চিত্রার নাম!           * চুয়াডাঙ্গায় তিন পুলিশ সদস্যকে কুপিয়ে জখম           *  দেশে ফিরেছেন প্রধানমন্ত্রী           *  জেলা প্রশাসকদের আজ স্মারকলিপি দেবে বিএনপি           *  মেক্সিকোতে হেলিকপ্টার বিধ্বস্ত হয়ে নিহত ১৩           * মিতুর ‘স্বপ্ন ভেঙে চুরমার’           * সিলেটে শেষ সম্মান রক্ষার লড়াই           * হালুয়াঘাটে চেয়ারম্যান কামরুলের ১৫৩ টি উন্নয়ন প্রকল্প            * রাজশাহীর বাজারে আগাম তরমুজ           * সাফারি পার্কে ব্ল্যাক সোয়ানের ৬ ছানা           * ঝিনাইগাতীতে কমিউনিটি ক্লিনিক বন্ধ : সেবা ব্যাহত           *  নান্দাইলে রাস্তায় বালুর পরিবর্তে কাদামাটি ব্যবহার            * নান্দাইল পৌরসভা- একুশ বছর ধরে ভাড়া ভবনে চলছে কার্যক্রম           * তারাকান্দা উপজেলায় ৪৬টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষক নেই           * ত্রিশালের ইউপি চেয়ারম্যান আবু সাঈদের জাতীয় পতাকা অবমাননার তদন্ত ধামাচাপা           * প্রতিটি মানুষের জীবনে লাইফ ইন্সুরেন্স করার ফল উপকারে আসে- মেয়র টিটু           * ময়মনসিংহে ১১শ পিচ ইয়াবাসহ মাদক ব্যবসায়ী রনি ডিবি কর্তৃক আটক            *  গাজীপুরে ট্রেনে কাটা পড়ে যুবক নিহত          
* ঝিনাইগাতীতে কমিউনিটি ক্লিনিক বন্ধ : সেবা ব্যাহত           * ময়মনসিংহে ১১শ পিচ ইয়াবাসহ মাদক ব্যবসায়ী রনি ডিবি কর্তৃক আটক            * আজ দেশে ফিরছেন প্রধানমন্ত্রী          

৩০০ রোহিঙ্গার ঠাঁই হলো আশ্রয় শিবিরে

টেকনাফ প্রতিনিধি, | মঙ্গলবার, ডিসেম্বর ৫, ২০১৭
৩০০ রোহিঙ্গার ঠাঁই হলো আশ্রয় শিবিরে
বাংলাদেশে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে মিয়ানমারের সঙ্গে সরকারের চুক্তি হলেও কক্সবাজার টেকনাফ উপজেলা বিভিন্ন সীমান্ত দিয়ে এখনো রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশ অব্যাহত রয়েছে।

মঙ্গলবার ভোরে টেকনাফের উনচিপ্রাং, হাড়িয়াখালী ও শাহপরীর দ্বীপ সীমান্ত দিয়ে তিন শতাধিক রোহিঙ্গা বাংলাদেশে প্রবেশ করেছে। তাদের মানবিক সহায়তা দিয়ে দুপুরে টেকনাফ রোহিঙ্গা শিবিরে পাঠানো হয়েছে বলে জানিয়েছেন টেকনাফ উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তা মো. জাহিদ হোসেন ছিদ্দিক।

ইউএনও জাহিদ হোসেন জানান, রোহিঙ্গাদের প্রত্যাবাসনের বিষয়ে দু’দেশের চুক্তি হলেও এখনো মিয়ানমার থেকে পালিয়ে এসে অনেক রোহিঙ্গা বাংলাদেশে আশ্রয় নিচ্ছে। গত এক সপ্তাহে টেকনাফে হারিয়াখালী ও বাহারছড়া ত্রাণ কেন্দ্রের মাধ্যমে নতুন করে আসা প্রায় পাঁচ হাজার রোহিঙ্গাকে আশ্রয় শিবিরে পাঠানো হয়েছে। প্রতিদিন নাফ নদী অতিক্রম করে অনেক রোহিঙ্গা বাংলাদশে প্রবেশ করে।

পালিয়ে আসা মংডু শহরে হাসসুরাতা গ্রামের নুরুল আমিন বলেন, গত এক মাস ধরে বসতবাড়ি ছেড়ে সেনাদের ভয়ে মিয়ানমার দংখালী চরে মানবেতর জীবন-যাপন করেছি। পরে বৃহস্পতিবার নৌকা করে টেকনাফের নয়াপাড়া দিয়ে ঢুকে পড়ি। কিন্তু এখন আর সেখানে থাকার কোনো সুযোগ নেই, তাই এপারে পালিয়ে এসেছি।

টেকনাফের সাবরাং হারিয়াখালী ত্রাণকেন্দ্রে দায়িত্ব পালন করা জেলা প্রশাসকের প্রতিনিধি ও টেকনাফ উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা মো. আলমগীর কবির বলেন, এ পয়েন্ট দিয়ে প্রতিদিন ২০০ থেকে ৩০০ জন রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশ করে থাকে। তাদের মানবিক সহায়তা ও ত্রাণ দিয়ে দিয়ে নয়াপাড়া রোহিঙ্গা শিবিরে পাঠানো হচ্ছে।

কয়েকটি পুলিশি চেকপোস্টে হামলার জের ধরে গত ২৫ আগস্ট থেকে রোহিঙ্গাদের দমনে অভিযানে নামে মিয়ানমার সেনাবাহিনী। অভিযানের নাম করে তারা হাজার হাজার রোহিঙ্গাকে হত্যা, নির্যাতন, নারীদের ধর্ষণ করে। নির্যাতন থেকে বাঁচতে সীমান্ত পাড়ি দিয়ে ইতোমধ্যে সাড়ে ছয় লাখেরও বেশি রোহিঙ্গা বাংলাদেশে প্রবেশ করে। এখনো প্রায় প্রতিদিন সীমান্ত দিয়ে অনেক রোহিঙ্গা বাংলাদেশ প্রবেশ করছে।




আরও পড়ুন



প্রধান সম্পাদকঃ
ড. মো: ইদ্রিস খান

সম্পাদক ও প্রকাশকঃ
মোঃ খায়রুল আলম রফিক

সিয়াম এন্ড সিফাত লিমিটেড
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ৬৫/১ চরপাড়া মোড়, সদর, ময়মনসিংহ।
ফোন- +৮৮০৯৬৬৬৮৪, +৮৮০১৭৭৯০৯১২৫০, +৮৮০১৯৫৩২৫২০৩৭
ইমেইল- aporadhshongbad@gmail.com
(নিউজ) এডিটর-ইন-চিফ,
ইমেইল- khirulalam250@gmail.com
close