*  পাসের দিক দিয়ে ৮ বোর্ডে মেয়েরা এগিয়ে           *  ময়মনসিংহে আওয়ামী লীগের বিভাগীয় প্রতিনিধি সভায়- আমু দলীয় শৃংখলা রক্ষাসহ ঐক্যবদ্ধভাবে সাংগঠনিক শক্তি আরো বৃদ্ধির তাগিদ           * ত্রিশালে বাধাগ্রস্থ উন্নয়ন রাজনৈতিক বিরোধের সুযোগে সরকারি কর্মকর্তাদের দুর্নীতি           * বাংলাদেশ অনলাইন সম্পাদক পরিষদের আহবায়ক কমিটি গঠিত           *  ধান ক্রয়ের তথ্য চাওয়ায় সাংবাদিককে ইউএনও হুমকি           * আলেমদের সহযোগিতায় জঙ্গিবাদ নিয়ন্ত্রণে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী           * ১৫ নদী বইছে বিপৎসীমার উপরে           *  শিশু ধর্ষণ চেষ্টা বাদীর কাছে টাকা নিয়ে ফাঁসছেন এসআই            * এত পরিশ্রম দুর্নীতিতে নষ্ট করবেন না: প্রধানমন্ত্রী           *  কলমাকান্দায় বন্যা পরিস্থিতি আরো অবনতি বন্যার্তদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ           * রোগী ধরা ডাক্তার নাদিম !           * সাভারে গণধর্ষণ মামলার আসামি ময়মনসিংহে গ্রেপ্তার            * সরকারি হাসপাতালে জখমি সনদ বাণিজ্য !           * নেত্রকোনায় ধর্ষণের বিরুদ্ধে খালি পায়ে হেঁেট প্রতিবাদ            * ময়মনসিংহে ধর্ষণের অভিযোগে নারীসহ গ্রেপ্তার ২           * টাঙ্গাইলে দেবেছে রেল লাইন, উত্তরের পথে সতর্কতা           *  বিয়েই করেননি, ‘স্ত্রী’র জন্য নিয়েছেন বিমান ভাড়া           *  পাওনা টাকা দেওয়ার কথা বলে থানায় ডেকে নারীকে মারধর, এএসআই ক্লোজড           *  মেয়রপুত্রের পা ধরে কেঁদেছি, তবুও রেহাই পাইনি           *  ময়য়মনসিংহ ডিবি’র অভিযানে মাদকসহ মোট গ্রেফতার ৬           
* ত্রিশালে বাধাগ্রস্থ উন্নয়ন রাজনৈতিক বিরোধের সুযোগে সরকারি কর্মকর্তাদের দুর্নীতি           * নুসরাতের নিপীড়নের মামলায় অধ্যক্ষ সিরাজের বিরুদ্ধে অভিযোগগ্রহণ           *  প্রেম করে বিয়ে: সদস্য সংগ্রহের নতুন কৌশল জঙ্গিদের          

সিরাজদিখানে পুলিশ কর্তৃক চাঁদা দাবীর অভিযোগ

মোঃ ফয়সাল হাওলাদার,সিরাজদিখান (মুন্সীগঞ্জ) | মঙ্গলবার, এপ্রিল ১৭, ২০১৮
সিরাজদিখানে পুলিশ কর্তৃক চাঁদা দাবীর অভিযোগ

মুন্সীগঞ্জের সিরাজদখান উপজেলায় পুলিশ কর্তৃক চাঁদা দাবীর অভিযোগ পাওয়া গেছে। গত ১২ এপ্রিল বৃহস্পতিবার রাত ১১ টায় লৌহজং উপজেলার করারবাগ গ্রামের আলম শেখের বসত বাড়ীতে গিয়ে ১ লক্ষ টাকা চাঁদা দাবী করেন সিরাজদিখান থানার এ এস আই আনোয়ার।
জানা গেছে, গত ১২ এপ্রিল বৃহস্পতিবার রাত ১১টায় সিরাজদিখান থানার ওয়ারেন্টের আসামী  আলমগীরকে গ্রেফতার করতে গিয়ে লৌহজং থানাধীন আলম শেখের বসত বাড়ীতে গিয়ে ব্যাপক ভাংচুর করেন এ এস আই আনোয়ার।

ভূক্তভোগী আলম শেখ জানান, রাত ১১ টায় আমার দরজা নক করে সিরাজদিখান থানার এ এস আই আনোয়ার। সে আমার নাম জিজ্ঞেস করে এবং আমাকে দরজা খুলতে বলে। আমার কোন মামলা নেই আর ওয়ারেন্টও নেই। তাই দরজা খুলিনি। পরে বিষয়টি আমি স্থানীয় ইউপি সদস্য আমির হোসেনকে ফোন করে জানাই। জানানোর পর স্থানীয় লোকজন সহ ইউপি সদস্য আমার বাড়ীতে এসে এ এস আই আনোয়ারকে আমার প্রকৃত নাম এবং ঠিকানা জানায়। তিনি আমার প্রকৃত নাম জানার পরও  থানায় ফোন করে এস আই সারোয়ার সহ আরো ১০/১২জন এনে আমার ঘরের দরজা ভেঙ্গে ঘরে ঢুকে ঘরের আসবাবপত্র ভেঙ্গে আমাকে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে যায়।

থানায় নেওয়ার পথে এ এস আই আনোয়ার আমার কাছ থেকে ১ লক্ষ টাকা চায় এবং বিভিন্ন রকম ভয়ভীতি দেখায়। আমিতো আসামী না। আমাকে বিনা দোষে থানার লকাপে রেখে হয়রানী করা হয়েছে। সকাল বেলায় জৈনসার ইউনিয়নের চেয়ারম্যান থানায় গিয়ে তার জিম্মায় আমাকে ছাড়িয়ে আনে।
তিনি আরো জানান, আপনারা এই এলাকার চায়ের দোকান থেকে শুরু করে সব মানুষের সাথে কথা বলে দেখেন এ এস আই আনোয়ারের যত অপকর্মের কথা তারা আপনাদের জানাবে। তার দুই সহযোগী এলাকার সুপরিচিত মাদক ব্যবসায়ী দুলাল ও শুক্কুর। তাদের নিয়ে এলাকার সহজ সরল লোকদের বিপদে ফেলে টাকা আদায় করে আসছে এ এস আই আনোয়ার। তার এক সহযোগী দুলাল তালুকদারকে আমাদের লৌহজং উপজেলার

খিদিরপাড়া ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান শাহ নেওয়াজ মৃধা  বিচার সালিশ করে এলাকা থেকে তাড়িয়ে দিয়েছে। তার সহযোগী দুলালকে তাড়িয়ে দেওয়ার কারণে আমাদের প্রতিদিন হুমকি দিয়ে আসছে এ এস আই আনোয়ার। ১৫ তারিখে আমার বাড়ীতে এসে এ এস আই আনোয়ার আমার স্ত্রীকে ডেকে বলেন তোমরা ৭০ লক্ষ টাকা দিয়ে বিল্ডিং বানাচ্ছো আর আমাদেরকে দেড় লক্ষ টাকা দিলে সমস্যা কোথায়। এরপর এলাকার লোকজন আমার বাড়ীতে আসলে এ এস আই আনোয়ার তার সহযোগী মাদক ব্যবসায়ী শুক্কুর আলীকে মোটর সাইকেলে বসিয়ে চলে যায়।

লৌহজং উপজেলার খিদিরপাড়া ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান শাহ নেওয়াজ মৃধার সাথে ফোনে কথা বললে তিনি জানান, দুলাল তালুকদার পুলিশের সাথে থেকে এলাকায় বিভিন্ন অপকর্মের প্রমান পাওয়ায় আমরা এলাকাবাসী তাকে এলাকা থেকে বের করে দিয়েছি। এ এস আই আনোয়ার আলম শেখ এর বাড়ীতে ভাংচুর করেছে এরকম তান্ডব পুলিশ করা উচিৎ নয়।

সিরাজদিখান থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আবুল কালাম জানান, কোর্ট থেকে ওয়ারেন্ট এসেছে ভুল ঠিকানায় কিন্ত আসামী সঠিক ব্যক্তি। আসামীর বাড়ী হওয়া উচিত ছিল লৌহজং উপজেলায় কিন্ত সিমান্তবর্তী ঠিকানা হওয়ায় তা ভুলে সিরাজদিখান উপজেলায় দেখানো হয়েছে । তার ঠিকানা ভুল থাকায় আমরা তাকে ছেড়ে দিয়েছি ।














আরও পড়ুন



১. প্রধান উপদেষ্টা ঃ এড. সাদির হোসেন (হাইকোর্ট আইনজীবি)
২. সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ মোঃ খায়রুল আলম রফিক
৩. নির্বাহী সম্পাদক ঃ প্রদীপ কুমার বিশ্বাস
৪. প্রধান প্রতিবেদক ঃ হাসান আল মামুন
প্রধান কার্যালয় ঃ ২৩৬/ এ, রুমা ভবন ,(৭ম তলা ), মতিঝিল ঢাকা , বাংলাদেশ । ফোন ঃ ০১৭৭৯০৯১২৫০
ফোন- +৮৮০৯৬৬৬৮৪, +৮৮০১৭৭৯০৯১২৫০, +৮৮০১৯৫৩২৫২০৩৭
ইমেইল- aporadhshongbad@gmail.com
(নিউজ) এডিটর-ইন-চিফ,
ইমেইল- khirulalam250@gmail.com
close