* শীতকালে শুষ্ক ও ফাটা ত্বকের ঘরোয়া সমাধান           *  ইতিহাস গড়ে জিতল বাংলাদেশ           *  দণ্ডিতদের ভোটে আসার পথ আটকাই থাকল           *  গোলাম মাওলা রনির মনোনয়নপত্র বাতিল           * হিরো আলমের প্রার্থিতা বাতিল           *  ইবি অধ্যাপক নূরী আর নেই           * কেন্দুয়ায় চিথোলিয়া গ্রামে বসেছিল রাতব্যাপী লালন সংগীতের আসর           * গাজীপুরে মরুভূমি ফুল এর মানবন্ধন           *  শান্তিচুক্তির ২১ বছর পাহাড়ে থামেনি ভাতৃঘাতী সংঘাত           *  প্রতিপক্ষকে প্রথমবার ফলোঅন করালো বাংলাদেশ           *  ১৫০ সিসির নতুন পালসার আনল বাজাজ           *  গাঁজা সেবনের দায়ে যুবকের জেল           *  সেরা ডিজিটাল ব্যাংকের পুরস্কার পেল সিটি ব্যাংক           * দেশে পৌঁছেছে ‘হংসবলাকা’            * মোদি কেমন হিন্দু, প্রশ্ন রাহুলের            * মিরাজের ঘূর্ণিতে ফলোঅনে উইন্ডিজ           * কাঠবোঝাই ট্রাক চাপায় প্রাণ গেল তিন শ্রমিকের           * নারায়ণগঞ্জে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ মাদক বিক্রেতা নিহত           * আলাস্কায় ভয়াবহ ভূমিকম্প, ৬ ঘণ্টায় ৪০ বার কম্পন           * জাতিসংঘের মিশনে বিমান বাহিনীর ২০২ সদস্যের কঙ্গো গমন          
* দেশে পৌঁছেছে ‘হংসবলাকা’            * মোদি কেমন হিন্দু, প্রশ্ন রাহুলের            * মিরাজের ঘূর্ণিতে ফলোঅনে উইন্ডিজ          

ভাত না খেয়ে ১৬ বছর পার করলেন ময়মনসিংহের এই কিশোর

স্টাফ রিপোর্টার | শনিবার, অক্টোবর ৬, ২০১৮
ভাত না খেয়ে ১৬ বছর পার করলেন  ময়মনসিংহের এই কিশোর

যেখানে আর দশজন ভাত খেয়ে বেঁচে আছে, সেখানে জন্মের পর থেকে আজ পর্যন্ত ভাত না খেয়েই দিব্যি জীবনযাপন করছেন এক কিশোর। তার নাম মুত্তাকার রাব্বি নিবিড়।১৬ বছরের এই কিশোরের বাড়ি ময়মনসিংহের বাঘমারায়। বাবা মো. মহসিন মিয়া (নয়ন) এবং মা রুকসানা পারভীন (রুমা)। চার ভাই ও এক বোনের মধ্যে সে চতুর্থ সন্তান।  আর সবার মতো সুস্থ এবং স্বাভাবিকভাবেই তার জন্ম। জন্মের পর তার কোনো সমস্যাই ছিলো না। সমস্যা শুরু হয় 'মুখে ভাত' অনুষ্ঠানে।

সবাই যখন তার মুখে প্রথমবার ভাত দিতে যায়, তখন সে মুখে ভাত দিলেই কান্নাকাটি শুরু করে দেয় এবং বমি করে ফেলে। পরিবারের লোকজন ভাবে আরেকটু বড় হোক তখন ভাত খাওয়ানো যাবে। দুই বছর পর্যন্ত শুধু মায়ের বুকের দুধ খেয়েই বড় হয় সে। এরপর তাকে আবার ভাত খাওয়ানোর চেষ্টা শুরু করে পরিবারের লোকজন। কিন্তু তখনো সে ভাত খেতে চায় না। জোর করে ভাত খাওয়াতে গেলেই বমি করে দেয়। যদিও পরিবারের কেউ আর তাকে ভাত খাওয়ানোর তেমন একটা চেষ্টা করেনি। ভাতের বিকল্পে তাকে সুজি খাওয়ানো শুরু করা হয়। ৫-৬ বছর পর্যন্ত শুধু সুজি খেয়েই পার করে সে। হঠাৎ একদিন বেশ অসুস্থ হয়ে পড়ে সে।

এদিকে বয়স যত বাড়ছে, খাবারের চাহিদাও বাড়ছিল তার। সেজন্য তখন থেকে সুজির বদলে তাকে দুধ, কলা, চিড়া, সেমাই ও সুজির বরফি দেওয়া হয়। এর পাশাপাশি তাকে ভাতও দেওয়া হতো, কিন্তু সে ভাত না খেয়ে থালায় থুতু দিয়ে ফেলে দিত। এভাবে দেখতে দেখতে তার বয়স ১২ তে পা রাখে। হঠাৎ একদিন এক আত্মীয়ের বিয়েতে তাকে নিয়ে যাওয়া হয়। তার মা তাকে পোলাও এবং মাংস ভরা একটি থালা তার সামনে দেয়। সে অল্প কিছু পোলাও এবং মাংস খায় সেখান থেকে। এরপর থেকে বাসায় তাকে পোলাও এবং মাংস রান্না করে দেওয়া শুরু হয়। সাথে চিড়া, রুটি, মুড়ি এবং বাইরের বিভিন্ন খাবার সে খাওয়া শুরু করে।

তার ভবিষ্যতের কথা চিন্তা করে, পরিবারের বড় ভাইয়েরা তাকে না খাইয়ে দু'দিন আটকে রাখে, অনেক মারধরও করে; যাতে করে সে ভাত খায়। কিন্তু এতকিছুর পরেও সে ভাত খায়নি। অবশেষে তাকে তার মতো করেই খেতে দেওয়া হয়। তার যা ভালো লাগে, তা সে খায়। দেখতে দেখতে এখন সেই ছোট্ট ছেলেটি ১৬ বছরের কিশোর। নিয়মিত ব্যায়াম, শরীরচর্চা এবং খেলাধুলার মাধ্যমে সে সুস্বাস্থের অধিকারী। বর্তমানেও তার প্রতিদিনের খাবারের তালিকায় থাকে, সকালে রুটি ও ডিম ভাজি। দুপুরে মাংস, পোলাও অথবা মাংসের ঝোল এবং মুড়ি। এছাড়া ফাস্টফুড, চাইনিজ সব ধরনের খাবার খায় সে। শুধু ভাত এবং খিঁচুড়ি খায় না।





আরও পড়ুন



সম্পাদক ও প্রকাশকঃ
মোঃ খায়রুল আলম রফিক

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়ঃ ৬৫/১ চরপাড়া মোড়, সদর, ময়মনসিংহ।
ফোন- +৮৮০৯৬৬৬৮৪, +৮৮০১৭৭৯০৯১২৫০, +৮৮০১৯৫৩২৫২০৩৭
ইমেইল- aporadhshongbad@gmail.com
(নিউজ) এডিটর-ইন-চিফ,
ইমেইল- khirulalam250@gmail.com
close