* ভাগিয়ে নয়, পান্নার পরিবারের সম্মতিতেই বিয়ে করেন মেয়র নজরুল            * আগামী বছরের মধ্যে শতভাগ মানুষ বিদ্যুৎ সুবিধায় আসবে           * মেঘনার চরে ১০০০ যাত্রী নিয়ে আটকা পড়েছে লঞ্চ           * জাপার মহাসচিব পদ হারানোসহ কঠিন খড়্গ নামছে রাঙ্গার ওপর           * বাবা মা হাসপাতালে, দাফন সম্পন্ন ছোট্ট আদীবার            *  কুমিল্লায় তারেক মনোয়ারসহ ৩ বক্তার ওয়াজ নিষিদ্ধ            * আজান ও ইক্বামতের উত্তরে রয়েছে যেসব ফায়দা           * এবার ভিন্ন লুকে নতুন খবর দিলেন তাহসান           * ছেলের সঙ্গে মালাইকার ‘সেক্সি’ সেলফি, শুরু তুমুল সমালোচনা           * প্লাস্টিকের বোতল জমিয়ে বানালেন নান্দনিক বাড়ি           * খালাস বন্ধ, পেঁয়াজের দাম কেজিতে ৩০ টাকা বৃদ্ধি!            * স্বামীকে দাফন করে ফেরার পথে মারা গেল স্ত্রী           * ৭ দিনে কোটিপতি হওয়ার ৭ উপায়           * কাশ্মীরে ভারতীয় সেনারা যৌন নির্যাতন চালাচ্ছে, ইমরানকে চিঠি গিলালির           *  সৌদি আরব থেকে দেশে ফিরছেন সেই সুমি            *  বাবরি মসজিদের রায় দিল যৌন কেলেঙ্কারিতে অভিযুক্ত বিচারপতি!            * যে আশঙ্কায় কাঁপছেন সারা আলি!           * রাইফেল হাতে বিয়ের মঞ্চে নবদম্পতি            * রোগী রেখে পালানোর সময় ডাক্তারকে গণধোলাই            * আ.লীগের ডিএনএ টেস্ট করা দরকার: আলাল          
* চালকের ভুলেই ভয়াবহ ট্রেন            * আইসিসি র‍্যাঙ্কিংয়ে নেই সাকিব, ঢুকলেন নাঈম           * বিএনপি ছেড়ে যাবেন এমন নেতাদের তালিকায় বহুজন :তথ্যমন্ত্রী           

ত্রিশালে নিরীহ নারীদের বিয়ে করে অমানুষিক নির্যাতন

কামরুজ্জামান মিনহাজ,ময়মনসিংহ | রবিবার, নভেম্বর ৩, ২০১৯

ত্রিশালে নিরীহ নারীদের বিয়ে করে  অমানুষিক নির্যাতন

বিয়ের পর যৌতুকের দাবিতে স্ত্রীকে নির্যাতনের ঘটনা অহরহ ঘটলেও ময়মনসিংহের ত্রিশাল উপজেলার দক্ষিণ বালিপাড়া গ্রামের ইদ্রিস আলী ওরফে স্বপন মাস্টারের পুত্র ওয়াদুদ আরও সাংঘাতিক । ওয়াদুদ ইতিমধ্যে ৪টি বিয়ে করেছে । তন্মধ্যে তার প্রথম স্ত্রী তাসলিমার যোগসাজশে ওয়াদুদ নিরীহ নারীদের বিয়ে করে এরপর  যৌতুকের দাবিতে অমানুষিক নির্যাতন করে বলে অভিযোগ উঠেছে ।

 নীরিহ নারীদের বিয়ে পরে তাকে নির্যাতন এবং যৌতুকের নামে টাকা হাতিয়ে নেয়া তার ব্যবসা। এতো সংখ্যক বিয়ের পরও কোনো প্রকার বিয়ে বিচ্ছেদ হয়নি ওয়াদুদের । গত ১৮ অক্টোবর ত্রিশাল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) বরাবর অভিযোগ করেছেন,  রুমা আক্তার (২৯) পিতা-মৃত নজিমুল হক, গ্রাম-ধলা বাজার, থানা-ত্রিশাল, জেলা-ময়মনসিংহ।

অভিযোগে , আঃ ওয়াদুদ (৩৮) পিতা-ইদ্রিস আলী ্ স্বপন মাস্টার, ২। পারুল আক্তার (৫৬) স্বামী- ইদ্রিস আলী  স্বপন মাস্টার, ৩। তাছলিমা আক্তার (৩৩) স্বামী-আঃ ওয়াদুুদ, সর্বসাং-দক্ষিন বালিপাড়া, থানা-ত্রিশাল, জেলা-ময়মনসিংহকে বিবাদী করা হয় ।

রুমার অভিযোগ, ১নং বিবাদীর সাথে দশ বছর আগে ইসলামী শরিয়ত মোতাবেক রেজিঃ কাবীন মূলে আমার বিয়ে হয়। বৈবাহিক জীবনে ১নং বিবাদীর ঔরষে ও আমার গর্ভে একজন মেয়ে সামিয়া আক্তার (০৯) এবং একজন ছেলে আব্দুল্লাহ আল মুজাহিদ(০৬) জন্ম গ্রহন করে।

১নং বিবাদী বিবাহিত থাকা সত্বেও ২নং বিবাদীর সহায়তায় তাহার পূর্বের স্ত্রী-সন্তানকে বাড়ি হতে অন্য স্থানে রেখে সে একজন অবিবাহিত পরিচয় আমাকে বিয়ে করে এবং বিয়ের ০১ বৎসর

পরেই তার প্রথম  স্ত্রী ৩নং বিবাদীকে বাড়িতে নিয়ে আসার পর হতেই ২ ও ৩নং বিবাদীর বিভিন্ন কথা বাতা দ্বারা ১নং বিবাদী প্রলোব্ধ হয়ে আমার পিত্রালয় হতে দশ লক্ষ টাকা যৌতুক এনে দিতে বলে।  দাবীকৃত যৌতুকের টাকা না দেওয়ায় ১নং বিবাদী ২নং বিবাদীর সক্রিয় সহায়তায় আমার উপর শারীরিক নির্যাতন শুরু করে।

 বিষয়টি আমি আমার অভিভাবকদের জনালে উনারা যৌতুক দিতে অস্বীকার করিলেও আমি সহ সন্তানদের ভবিষ্যত জীবন সুখের চিন্তা করিয়া ০২ কিন্তী বিবাদীদের ১লাখ ৩৫ হাজার টাকা ও বিভিন্ন আসবাবপত্র মূল্য ৪৫ হাজার টাকা হবে দেয় এবং আমাকে নির্যাতন করার জন্য বিবাদীদের বুঝ পরামর্শ দেয়।

পরবর্তীতে বিবাহের অনুুমান ০৪ বৎসর গত হলে আমার পিতার মৃত্যুর পর বিবাদীরা তাদের যৌতুকের টাকার জন্য বেপরোয়া হয়ে উঠে এবং আমার উপর মারাত্মক ভাবে শারীরিক নির্যাতন করে আসিতে থাকে।

 পিতার মৃত্যুর পর আমাদের সাংসারিক অবস্থার অবনতি ঘটলে, আমার অভিভাবকগন বিবাদীদের দাবীকৃত যৌতুকের টাকা দিতে না পারায় ১নং বিবাদী আমার বিনা অনুমতিতে পূনরায় ৩য় বিবাহ করে এবং আমার উপর নির্যাতন করে আসিতে থাকে।

তদুপরি আমার ০২ টি সন্তানের মুখের দিকে তাকিয়ে বিবাদীদের সর্বধরনের নির্যাতন আমার ছােট এই শরীরে সহ্য করে ১নং বিবাদীর সহিত ঘর সংসার করা কালীন যৌতুকের টাকা দিতে না

পারার কারনে ১নং বিবাদী ২ ও ৩নং বিবাদীর সহায়তায় অনুমান দেড় মাস পূর্বে আমাকে বেদড়ক মারধর সহ ডান হাতের কুনুইয়ের নীচে মারাত্মক ভাবে হাড় ভাঙ্গা জখম করে।

এর পরেও সন্তানদের ভবিষ্যত জীবন চিন্তা করে আমরা কোন অভিযােগ বা মামলা মোকদ্দমা না করে বিবাদীদের বাড়িতেই অবস্থান পূর্বক ১নং বিবাদীর সাথে ঘর সংসার করতে থাকাবস্থায় 

আসিতে থাকাবস্থায় আমি গত ১৮ অক্টোবর সকালে বিবাদীদের বসত ঘরে সাংসারিক কাজ করাবস্থায়
২ ও ৩নং বিবাদী যৌতুকের টাকার বিষয়ে বিভিন্ন ধরনের কথাবার্তা বলিলে, ১নং বিবাদী পূর্বের ন্যায় তাদের কথায় প্রলুব্ধ হয়ে তাদের দাবীকৃত যৌতুকের টাকা আমার পিত্রালয় হতে এনে দিতে বলিলে,

আমি তাতে রাজি না হওয়ায় ঘরে থাকা লােহার রড দিয়ে ১নং বিবাদী ২ ও ৩নং বিবাদীর সহায়তায় আমার দুই পায়ে, ঘাড়ের পিছন সহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে এলোপাথারী পিটিয়ে  জখম পূর্বক আমাকে তাদের বাড়ি থেকে এক কাপড়ে বের করে দেয় ।

এব্যাপারে অভিযোগ তদন্তকারী ত্রিশাল থানার উপ পরিদর্শক (এসআই) আব্দুর রউফ জানান, তদন্তে অভিযোগের সত্যতা পাওয়া গেছে । মামলা রেকর্ডের বিষয়ে অফিসার ইনচার্জ (ওসি) স্যারের সাথে কথা বলেন ।





আরও পড়ুন



২. সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ মোঃ খায়রুল আলম রফিক
৩. নির্বাহী সম্পাদক ঃ প্রদীপ কুমার বিশ্বাস
৪. প্রধান প্রতিবেদক ঃ হাসান আল মামুন
প্রধান কার্যালয় ঃ ২৩৬/ এ, রুমা ভবন ,(৭ম তলা ), মতিঝিল ঢাকা , বাংলাদেশ । ফোন ঃ ০১৭৭৯০৯১২৫০
ফোন- +৮৮০৯৬৬৬৮৪, +৮৮০১৭৭৯০৯১২৫০, +৮৮০১৯৫৩২৫২০৩৭
ইমেইল- aporadhshongbad@gmail.com
(নিউজ) এডিটর-ইন-চিফ,
ইমেইল- khirulalam250@gmail.com
close