*  দুঃস্বপ্ন মানুষের মস্তিষ্কের কার্যক্ষমতা বাড়ায়!           * ঢাবির সিনেট ভবনের সামনে চুম্বনরত তরুণ-তরুণীর ছবি ভাইরাল            * জাল-বড়শিতে নয় মুখ দিয়ে মাছ শিকার করেন তিনি            * ফেনীতে মিজানুর রহমান আযহারীর মাহফিল বন্ধ           * বোমাসদৃশ বস্তু ঘিরে রেখেছে পুলিশ, চরম উত্তেজনা           * ‘কনডম রিপন’ গ্রেফতার           *  আটলান্টিকে নৌকাডুবি, প্রাণ গেলো ৬৭ জনের            *  পেঁয়াজ এবার আদালতে            *  যে মুহূর্তগুলো নারী কখনই ভুলে না            * চীনে যৌনকর্মী হিসেবে পাচার হচ্ছেন পাকিস্তানি নারীরা           * পুরুষের শক্তি দ্বিগুন করার ক্ষমতা রাখে এই ৪টি ‘ঔষধি’ খাবারই            *  সপ্তাহে ৩ দিন শারীরিক সম্পর্কে বিপদ হতে পারে!            *  সময় মতো সংসদে পৌঁছাতে ভারতের রেলমন্ত্রীর দৌঁড়            *  ৮০ হাজার ইয়াবাসহ ছাত্রলীগ নেতা গ্রেফতার            * সিএনজি-অটোরিক্সা থেকে চাঁদা আদায়ের সময় গ্রেফতার- ১০           * মহিলা মাদক ব্যবসায়ী আটক           * ইনজেকশন দেওয়ার পর প্রসূতির মৃত্যু, স্বজনদের অভিযোগ ভুল চিকিৎসা           * বিচ্ছিন্ন দ্বীপ রাঙ্গাবালীতে চালু হচ্ছে বোট এ্যাম্বুলেন্স           * চাকরিচ্যুতদের বহালের দাবি ডিইউজের : শনিবার এসএটিভিতে তালা            * শেবাচিম পরিচালক ডা. মো. বাকির হোসেনের দুই বাড়ির মূল্য ১৭ কোটি !          
*  খালেদা জিয়ার জামিন আবেদনের পরবর্তী শুনানি ১২ ডিসেম্বর            *  বাংলাদেশের কাছে পাত্তাই পেল না নেপাল           * বিক্ষোভে উত্তাল ইরানে নিহত ২০৮: অ্যামনেস্টি           

প্রধান শিক্ষকের বেতন ১১ গ্রেডে, সহকারি শিক্ষকের ১৩ গ্রেডে

অপরাধ সংবাদ ডেস্ক | মঙ্গলবার, নভেম্বর ১২, ২০১৯
প্রধান শিক্ষকের বেতন ১১ গ্রেডে, সহকারি শিক্ষকের ১৩ গ্রেডে

সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও সহকারী শিক্ষকদের বিরাজমান বেতন বৈষম্য নিরসন করেছে অর্থ মন্ত্রণালয়ের অর্থ বিভাগ।

অর্থ মন্ত্রণালয়ের নতুন নির্দেশনা অনুযায়ী, এখন থেকে সব প্রধান ‘শিক্ষক জাতীয় বেতন স্কেল, ২০১৫’ এর ১১তম গ্রেডে (১২৫০০-৩০২৩০ টাকা) এবং সব সহকারী শিক্ষক ১৩তম গ্রেডে (১১০০০-২৬৫৯০ টাকা) বেতন পাবেন।

বেতন বৈষম্য নিরসন করে গত ৭ নভেম্বর অর্থ মন্ত্রণালয়ের অর্থ বিভাগের বাস্তবায়ন অনুবিভাগের বাস্তবায়ন-১ অধিশাখা থেকে এ সংক্রান্ত চিঠি প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সচিবের কাছে পাঠানো হয়।

অর্থ বিভাগের এই চিঠির পর প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত ও প্রশিক্ষণবিহীন প্রধান শিক্ষক ও সহকারী শিক্ষকদের বেতনের কোনো বৈষম্য থাকলো না। চিঠিতে বলা হয়েছে, প্রশাসনিক মন্ত্রণালয়ের মঞ্জুরি আদেশ জারির তারিখ থেকে শিক্ষকদের উন্নীত বেতন গ্রেড কার্যকর হবে।

২০১৫ সালের জাতীয় বেতন স্কেলে বর্তমানে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষকের বেতন ১২৫০০-৩০২৩০ টাকা (গ্রেড-১১) এবং প্রশিক্ষণবিহীন প্রধান শিক্ষকের বেতন স্কেল ১১৩০০-২৪৬৮০ টাকা (গ্রেড-১৪) ছিল।

অর্থ বিভাগ প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত ও প্রশিক্ষণবিহীন উভয় ক্ষেত্রেই প্রধান শিক্ষকের বেতন স্কেল ১২৫০০-৩০২৩০ টাকা (গ্রেড-১১) নির্ধারণ করে দিয়েছে।

অপরদিকে, প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত সহকারী শিক্ষকদের বেতন স্কেল ছিল ১০২০০-২৪৬৮০ টাকা (গ্রেড-১৪) এবং প্রশিক্ষণবিহীন সহকারী শিক্ষকের বেতন স্কেল ছিল ৯৭০০-২৩৪৯০ টাকা (গ্রেড-১৫)

প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত ও প্রশিক্ষণবিহীন সহকারী শিক্ষকের উভয় ক্ষেত্রেই বেতন স্কেল ১১০০০-২৬৫৯০ টাকা (গ্রেড-১৩)-তে উন্নীত করেছে অর্থ বিভাগ।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব (বিদ্যালয়) মো. বদরুল হাসান বাবুল গণমাধ্যমকে বলেন, শিক্ষকদের বেতন বৈষম্য নিরসন করতে অর্থ বিভাগে চিঠি পাঠানো হয়েছিল। সহকারী শিক্ষকদের মধ্যে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত ও প্রশিক্ষণ বিহীনদের ১৩তম গ্রেড হওয়ায় বর্তমান অবস্থায় প্রায় ১২ বছর চাকরি করে এই গ্রেডে আসতো। এতে তারা ১২ বছর এগিয়ে থাকলো।

উল্লেখ্য, বেতনবৈষম্য নিরসনের দাবিতে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকরা আন্দোলনে আছেন। প্রধান শিক্ষকদের জন্য দশম গ্রেড এবং সহকারী শিক্ষকদের জন্য ১১তম গ্রেডের দাবিতে আন্দোলন করছেন তাঁরা। আগামী ১৩ নভেম্বরের মধ্যে দাবি মানার সুনির্দিষ্ট আশ্বাস না পেলে প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী (পিইসি) পরীক্ষা বর্জন করার হুমকিও দিয়েছিলেন শিক্ষকরা। তাদের বেধে দেওয়া সময়সীমার আগেই নতুন এ সিদ্ধান্ত এল।





আরও পড়ুন



২. সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ মোঃ খায়রুল আলম রফিক
৩. নির্বাহী সম্পাদক ঃ প্রদীপ কুমার বিশ্বাস
৪. প্রধান প্রতিবেদক ঃ হাসান আল মামুন
প্রধান কার্যালয় ঃ ২৩৬/ এ, রুমা ভবন ,(৭ম তলা ), মতিঝিল ঢাকা , বাংলাদেশ । ফোন ঃ ০১৭৭৯০৯১২৫০
ফোন- +৮৮০৯৬৬৬৮৪, +৮৮০১৭৭৯০৯১২৫০, +৮৮০১৯৫৩২৫২০৩৭
ইমেইল- aporadhshongbad@gmail.com
(নিউজ) এডিটর-ইন-চিফ,
ইমেইল- khirulalam250@gmail.com
close