রংপুরে পুলিশের তাড়া খেয়ে অজ্ঞান হবার পর ব্যক্তির মৃত্যু

অপরাধ সংবাদ ডেস্ক | মঙ্গলবার, এপ্রিল ৫, ২০১৬
রংপুরে পুলিশের তাড়া খেয়ে অজ্ঞান হবার পর ব্যক্তির মৃত্যু
রংপুর নগরীতে পুলিশের তাড়া খেয়ে অজ্ঞান হওয়ার পর এক ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে, যাকে মাদক বিক্রেতা বলে দাবি করছে পুলিশ। গত সোমবার রাত পৌনে ১২টায় রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে সাইফুল ইসলাম সাইফ (৪৫) নামে ওই ব্যক্তির মৃত্যু হয় বলে কোতোয়ালি থানার ওসি এ বি এম জাহিদুল ইসলাম জানান। সাইফুল রংপুরের বদরগঞ্জ উপজেলার মধুপুর শালবাগান গ্রামের মতিয়ার রহমানের ছেলে। ওসি বলেন, রাত ৮টার দিকে কোতোয়ালি থানার এসআই মিজানুর রহমান সোর্স মশিউর রহমানকে নিয়ে মামলার কাজে বদরগঞ্জ রোডের দিকে যাচ্ছিলেন। পথে ‘মাদক বিক্রেতা’ সাইফুলকে দেখে তাকে দাঁড়াতে বলেন। এ সময় সাইফুল দৌড়ে পালানোর চেষ্টা করলে করলে পুলিশ তাকে ধাওয়া করে। ধাওয়া থেয়ে সাইফ একটি বাড়িতে ঢুকে জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন। উদ্ধার করে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। হাসপাতালের পরিচালক আ স ম বরকতুল্লাহ বলেন, পুলিশের তাড়া খেয়ে ভয়ে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে সাইফুলের মুত্যু হতে পারে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে। ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন পাওয়ার পর মৃত্যুর প্রকৃত কারণ নিশ্চিত হওয়া যাবে বলে জানান তিনি। ওসি জাহিদুল বলেন, সাইফুলের বিরুদ্ধে কোতোয়ালি থানায় মাদকের চারটি মামলা রয়েছে। তার লাশ ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে। এ ঘটনায় সাইফুলের স্ত্রী লিলি বেগম বাদী হয়ে একটি মামলা করেছেন।

অপরাধ সংবাদ/রা