নিখোঁজ সাইফুল্লাহ ধর্মান্তরিত মুসলিম

নিজস্ব প্রতিবেদক, | বুধবার, জুলাই ১৩, ২০১৬
নিখোঁজ সাইফুল্লাহ ধর্মান্তরিত মুসলিম
গুলশানের অভিজাত হলি আর্টিজান রেস্তোরাঁ ও শোলাকিয়ায় জঙ্গি হামলার পর আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর পক্ষ থেকে নিখোঁজ ১০ যুবকের ছবিসহ যে নাম প্রকাশ করা হয়েছে তাদের একজন ধর্মান্তরিত মুসলিম বলে জানা গেছে। জাপান প্রবাসী মোহাম্মদ সাইফুল্লাহ ওজাকি ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগর উপজেলার জিনদপুর ইউনিয়নের কড়ইবাড়ি গ্রামের সুজিত দেবনাথের ছেলে। হিন্দু ধর্ম থেকে ধর্মান্তরিত হয়ে তিনি ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেন। ইসলাম গ্রহণের আগে তার নাম ছিল সুজিত দেবনাথ। মিডিয়ার প্রচার করা ১০ জনের তালিকায় থাকা সাইফুল্লাহ ওজাকির ছবি দেখে তার বাবা ছেলের পরিচয় শনাক্ত করেন।

সুজিতের বাবা জনার্ধন দেবনাথ জানান, এক বছর আগে ছেলের সঙ্গে তার সর্বশেষ যোগাযোগ হয়েছিল। তবে ছেলে নিখোঁজ হওয়ার কথা তিনি জানতেন না।

জানা গেছে, জিনদপুর ইউনিয়নের হুরুয়া প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকে পঞ্চম শ্রেণি পাস করে একই উপজেলার লাউর ফতেহপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে ষষ্ঠ শ্রেণি পর্যন্ত লেখাপড়া করে সুজিত। এরপর সিলেট ক্যাডেট কলেজ থেকে এসএসসি এবং এইচএসসি পাস করে ২০০১ সালে জাপান সরকারের স্কলারশিপ নিয়ে সেদেশের এশিয়া প্যাসিফিক ইউনিভার্সিটি থেকে স্নাতক এবং স্নাতকোত্তরে প্রথম শ্রেণিতে প্রথম হয়ে জাপানের একটি বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যাপনা শুরু করেন। মোহাম্মদ সাইফুল্লাহ ওজাকির পাসপোর্ট নম্বর টি কে ৮০৯৯৮৬০।

পরে জাপানেই হিন্দু থেকে ইসলাম ধর্মে ধর্মান্তরিত হয়ে জাপানি এক মেয়েকে বিয়ে করে তিনি মোহাম্মদ সাইফুল্লাহ ওজাকি নাম ধারণ করেন।

জিনদপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবদুর রউফ জানান, সুজিতকে আমি ছোটবেলা থেকেই চিনি। প্রায় ১৪ মাস আগে আমার এখানে আসার পর সে তার মা-বাবার সঙ্গে দেখা করে গেছে। এরপর থেকে তার সঙ্গে আর কোনো যোগাযোগ নেই।

গত এক বছর ধরে সুজিত নিখোঁজ থাকলেও পরিবারের পক্ষ থেকে থানায় কোনো অভিযোগ করা হয়নি।

জানতে চাইলে নবীনগর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইমতিয়াজ আহম্মেদ জানান, থানায় সুজিতের নামে কোনো জিডি নেই। তবে কয়েক মাস আগে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশ থেকে মোহাম্মদ সাইফুল্লাহ ওজাকির নাম-ঠিকানা যাচাইকরণের জন্য বলা হয়েছিল। বিষয়টি তদন্ত করে নাম-ঠিকানা যাচাই করে পাঠানো হয়েছে।