টেকনাফে ২১ লাখ ইয়াবা উদ্ধার

টেকনাফ (কক্সবাজার) প্রতিনিধি | শুক্রবার, মার্চ ১৬, ২০১৮
টেকনাফে ২১ লাখ ইয়াবা উদ্ধার
কক্সবাজারের টেকনাফ উপজেলায়  পৃথক অভিযান চালিয়ে ২১ লাখ ৯৪৭  ইয়াবা উদ্ধার করেছে বিজিবি ও কোস্ট গার্ড সদস্যরা। এ ঘটনায় কাউকে আটক করতে পারেননি তারা।

জব্দকৃত ইয়াবার মধ্যে ১৮ লাখ ৮৯৭ করে বিজিবি। শুক্রবার দুপুরে টেকনাফ ২ নম্বর ব্যাটালিয়নের মাঠ প্রাঙ্গনে সাংবাদিক সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। এসময় টেকনাফ-২ ব্যাটালিয়ন অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল আছাদুদ জামান চৌধুরী জানান, মিয়ানমার থেকে ইয়াবার বড় চালান নাফ নদী পেরিয়ে কক্সবাজারের টেকনাফ দিয়ে ঢুকছে, এমন গোপন খবরের ভিত্তিতে বৃহস্পতিবার দিবাগত রাতে তিনিসহ বিজিবির একটি বিশেষ টহল দল স্থলবন্দর সংলগ্ন নাফ নদীতে অবস্থান করেন। এসময় মিয়ানমার থেকে আসা একটি নৌকায় করে কয়েকজন পাচারকারী নাফ নদীর পাড়ে এসে নামেন। তাদের কাঁধে বস্তা দেখে বিজিবি তাদের থামতে সংকেত দেয়। বিজিবির উপস্থিতি টের পেয়ে তিনটি বস্তা ফেলে পালিয়ে যায় তারা। পরে ওই বস্তার ভেতর থেকে ৫ লাখ ৮৯৭ টি ইয়াবা পাওয়া যায়।

তিনি বলেন,  এছাড়া সাবরাং ইউনিয়নের ঝিনুখাল এলাকায় আরও একটি ইয়াবা চালান সেখান দিয়ে ঢুকছে। এমন খবর পেয়ে টেকনাফ সদর চৌকির হাবিলদার আশরাফুল আলমের নেতৃত্বে আরেকটি দল শুক্রবার ভোরে ওই এলাকায় অভিযান চালায়। এসময় মিয়ানমার থেকে আসা ইঞ্জিনচালিত একটি নৌকা ফেলে  ৪-৫ জন পাচারকারী পালিয়ে যায়। পরে  নৌকায় তল্লাশি চালিয়ে ১৩ লাখ ২ হাজার ইয়াবা পাওয়া যায়। উদ্ধারকৃত ১৮ লাখ ২ হাজার ৮৯৭  ইয়াবার বাজারমূল্য  ৫৪ কোটি ৮ লাখ ৬৯ হাজার টাকা বলে তিনি জানান।

কর্নেল আছাদুদ জামান আরও বলেন, একই দিন সকালে দমদমিয়া চেক পোস্টে ৫০ ইয়াবাসহ এক পাচারকারীকে আটক করে। পরে তাকে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে সাঁজা দেয়া হবে।

এদিকে বাংলাদেশ কোস্ট গার্ড বাহিনী অপারাশন পরিদপ্তর (গোয়েন্দা) শাখার সহকারি পরিচালক লেফটেন্যান্ট কমান্ডার আব্দুল্লাহ আল মারুফ স্বাক্ষরিত পাঠানো এক বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছেন, শুক্রবার সকালে কোস্ট গার্ড পূর্ব জোনের একটি টিম টেকনাফের সেন্টমার্টিন ছেড়াদ্বীপ সাগরে অভিযান  চালায়। এসময় ভাসমান অবস্থায় ৩ লাখ ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় কেউ আটক হয়নি। উদ্ধার ইয়াবার দাম ১৫ কোটি টাকা উলেøখ করে ইয়াবাগুলো টেকনাফ থানায় হস্তান্তর করার প্রস্তুতি চলছে বলে  বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়।