ভাঙ্গায় পানিতে ডুবে ভাই-বোনসহ ৩ শিশুর করুন মৃত্যু

মোঃ রমজান সিকদার, ভ্রাম্যমান প্রতিনিধি | রবিবার, জুন ১০, ২০১৮

ভাঙ্গায় পানিতে ডুবে ভাই-বোনসহ ৩ শিশুর করুন মৃত্যু
ফরিদপুরের ভাঙ্গা উপজেলার নুরুল্লাগঞ্জ ইউনিয়নের কাঠালবাড়ী গ্রামে রোববার দুপুরে পানিতে ডুবে ভাই-বোন সহ ৩ শিশুর  করুন মৃত্যু হয়েছে। উক্ত গ্রামের জামের আলী মাতুব্বরের ছেলে সাজ্জাদ(৫) ও মেয়ে জেমি আক্তার(৮) এবং একই এলাকার বাসার মাতুব্বরের মেয়ে মিম আক্তারী(৪) পুকুরের পানিতে ডুবে মারা যায়। এর মধ্যে সাজ্জাদ ও জেমি আক্তারী সদরপুর সরকারি আদর্শ প্রাথমিক বিদ্যালয় ও জেমি আক্তারী কাঠালবাড়ী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ছিল।
 থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সাঈদুর রহমান জানায়, জামের আলী সদরপুর বাজারে একজন ফল ব্যবসায়ী। রোববার তার নিজ গ্রাম কাঠালবাড়ীতে ইফতার মাহফিল ছিল। দুপুরে তার দুই ছেলে-মেয়ে ও পাশের বাড়ীর অপর একটি মেয়ে পাশ্ববর্তী পুকুরে গোসল করতে নামে। পুকুরটিতে ইতিপুর্বে ড্রেজার মেশিন দিয়ে বালূ উত্তোলন করায় পানি অনেক গভীর ছিল। গোসল করার এক পর্যায় গভীর পানিতে তিন শিশুই ডুবে যায়। এসময় বাড়ীর লোকজন তাদেরকে পানিতে অনেক খোজাখুজি করার পর তিনজনকেই উদ্ধার করে সদরপুর হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানে কর্তব্যরত ডাক্তার তাদের মৃত ঘোষনা করেন। এ ঘটনায় এলাকার লোকজনের কান্নায় আকাশ-বাতাস ভারী হয়ে ওঠে এবং পুরো এলাকা শোকে স্তব্ধ হয়ে যায়।
এ ঘটনার সংবাদ পেয়ে উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তা কাজী মাহাবুব উর রহমান দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌছে শোকার্ত পরিবার গুলো পাশে দাড়ান এবং গভীর শোক প্রকাশ করেন। উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ হতে প্রাথমিক ভাবে লাশ তিনটি দাফন-কাফনের জন্য ৩০ হাজার টাকা প্রদান করেন।