আমন ধান চাষাবাদে ব্যস্ত কৃষকরা

প্রতিনিধি বদলগাছী (নওগাঁ) | শুক্রবার, আগস্ট ৩, ২০১৮

আমন ধান চাষাবাদে ব্যস্ত কৃষকরা

নওগাঁর বদলগাছী উপজেলায় রোপা আমন চাষের জন্য জমি তৈরি, চারা উত্তোলন ও চারা রোপনের কাজে ব্যস্ত সময় কটাচ্ছেন এলাকার কৃষকরা। আমন চাষাবাদে কৃষকদের পাশাপাশি আমন ধানের চারা উত্তোলন ও রোপনের কাজে ব্যস্ততা বেড়েছে আদিবাসী নারী ও পুরুষ শ্রমিকদের।
জানাযায় , চলতি বছরে রোপা আমন চাষে আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় বীজতলায় কোন প্রকার রোগ-বালাই না থাকায় কৃষকরা রোপা আমন চাষাবাদে ব্যস্ত হয়ে পড়েছেন। তারা ৩০ থেকে ৪০ দিন বয়সী চারা জমিতে রোপণ করছেন। এলাকায় পুরোদমে রোপা আমন ধান চাষাবাদ শুরু হয়েছে বলে কৃষকেরা জানিয়েছেন।

বদলগাছী উপজেলার বিভিন্ন মাঠ ঘুরে দেখাযায়, মাঠে মাঠে শুরু হয়েছে আমন ধানের চারা রোপনের কাজ। ইতিমধ্যেই এ উপজেলায় ৭০ থেকে ৭৫ ভাগ জমিতে ধান রোপনের কাজ শেষ হয়েছে। এবং আগামী ১০/১৫ দিনের মধ্যে অবশিষ্ট জমিতে আমন ধানের চারা রোপনের কাজ শেষ হবে বলে আশা করছেন এলাকার কৃষকরা। চলতি রোপা আমন মৌসুমে প্রথমদিকে বৃষ্টিপাত না থাকায় গভীর নলকুপ ও স্যালো মেশিন দ্বারা সেচ দিয়ে চাষাবাদ শুরু করলেও পরে টানা কয়েকদিনের মাঝারি ও ভারী বৃষ্টি পাতের ফলে অনান্য বছরের মতো এ বছর পানি নিয়ে আর কৃষকদের দুশ্চিন্তা করতে হচ্ছেনা। বৃষ্টির পানি মাঠে পর্যাপ্ত থাকার করনে আনন্দের সাথে  আমন চাষাবাদ করছেন কৃষকরা।

বিগত বছর গুলুতে আমন মৌসুমে যতেষ্ট পরিমান বৃষ্টি না থাকায় গভীর-অগভীর নলকুপ এর মাধ্যেমে সেচ দিয়ে আমন ধানের চাষাবাদ করতে হতো এলাকার কৃষকদের। আর সেই সময় প্রতি বিঘা জমিতে চারা রোপন করতে সেচ বাবদ কৃষকদের ৪শ থেকে ৫ শত টাকা অতিরিক্ত খরচ গুণতে হতো। আর এবছর কয়েক দিনের টানা বৃষ্টি পাতের কারনে এই অতিরিক্ত টাকা সাশ্রয় হচ্ছে এলাকার কৃষকদের।
  উপজেলা কৃষি অফিস সুত্রে জানাযায়, চলতি মৌসুমে রোপা আমন ধান আবাদের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে ১০ হাজার ৯ শত ১৫ হেক্টর। গত বোরো মৌসুমে ধানের বাম্পার ফলন ও ভাল দাম পাওয়ায় উপজেলার কৃষকেরা এ বছর রোপা আমন ধান চাষাবাদে আরও বেশি আগ্রহী হয়ে উঠেছে। তাই এ বছর রোপা আমন লক্ষ্যমাত্রা অনেক ছাড়িয়ে যাবে বলে আশা করছে স্থানীয় কৃষি বিভাগ।
অধিক ফলনের আশায় উপজেলার কৃষকরা এবার স্থানীয় জাতের পাশাপাশি উল্লেখযোগ্য জমিতে উচ্চ ফলনশীল জাতের ধানের চারা রোপন করছেন। এসব জাতের মধ্যে রয়েছে চিনি আতব,স্বর্ণা-৫,গুটিস্বর্ণা,বিআর-১১,ব্রিধান-৩৩,৩৪ ব্রিধান-৫১,৫২,৬২,৫৬, ৭০,৭১,৭২ ও বিনা-৭ ।
 উপজেলার বদলগাছী ইউনিয়নের কৃষক বেলাল বলেন , এবছর বীজতলাতে রোপা আমন ধানের চারা খুব ভালো হয়েছে চারাতে কোন রোগ বালাই নেই । চারা রোপনের জন্য জমি তৈরি করা হচ্ছে। তিনি চলতি মৌসুমে ১৫ বিঘা জমিতে আমন ধান চাষাবাদ করবেন। আবহাওয়া অনুকূল থাকলে এবার ভালো ফলন হবে বলে আশা করছেন তিনি।

বদলগাছী উপজেলা কৃষি অফিসার হাসান আলী জানান, এ বছর আবহাওয়া অনুকুলে থাকায় রোপা আমন ধানের বীজতলাতে চারা ভালো হয়েছে। শেষ পর্যন্ত আবহাওয়া ভালো থাকলে রোপা আমন ধানের বাম্পার ফলনও হবে। এ পর্যন্ত এ উপজেলায় প্রায় ৭০ থেকে ৭৫ ভাগ জমিতি কৃষক রোপা আমন ধান রোপন শেষ করেছেন। তিনি আরও বলেন, এ বছর রোপা আমন ধান চাষাবাদের লক্ষ্য মাত্রা ছাড়িয়ে যাবে।